৬৬ কি.মি. রাস্তায় বসবে ২২শ’ এলইডি বাতি

10

নিজস্ব প্রতিবেদক

নগরীর ৩১টি ওয়ার্ডের ৬৬ কিলোমিটার রাস্তায় ২২শ এলইডি বাতি স্থাপন করছে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক)। কোভিড-১৯ রিকভারি প্রজেক্টের আওতায় ২৩ কোটি টাকা ব্যয়ে এসব বাতি লাগানো হবে।
গতকাল বিকালে কোর্ট বিল্ডিংস্থ শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে কোভিড-১৯ রিকভারি প্রজেক্টের আওতায় প্রথম পর্যায়ে নগরীর ৬৬ কিলোমিটার রাস্তায় এলইডি বাতি স্থাপন কাজের উদ্বোধন করেন চট্টগ্রাম সিটি মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. রেজাউল করিম চৌধুরী।
এ সময় মেয়র বলেন, আমি পুরো নগরীকে আলোকায়নের উদ্যোগ গ্রহণ করেছি। প্রাথমিকভাবে আজ (বুধবার) ৬৬ কিলোমিটার রাস্তায় এলইডি বাতি স্থাপনের কাজ শুরু হল। পর্যায়ক্রমে পুরো নগরীকে আলোকায়ন করা হবে। এছাড়া আলোকায়নে গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে নান্দনিকতায়ও। প্রজাপতি ও নৌকার আদলে বাতি দিয়ে শহরের রাতের সৌন্দর্যে ভিন্ন মাত্রা যোগ করা হচ্ছে।’
‘কিছু কিছু এলাকায় তার চুরির কারণে নগরবাসী কষ্ট পাচ্ছে। চুরি ঠেকাতে নগরবাসীর সহযোগিতা চাই। নগরীর ঝুলন্ত তারের জঞ্জাল সরাব। লালখানবাজারে ইতোমধ্যে ঝুলন্ত তার মাটির নিচে নিয়ে গেছি। দেড় বছরের মধ্যে নগরীর সব তার মাটির নিচে নেয়া আমাদের লক্ষ্য।’
চসিকের বিদ্যুৎ উপ-বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, ৩১টি ওয়ার্ডের মধ্যে ১৪ নং ওয়ার্ডে চাঁনমারী রোডে গরিবুল্লাহ শাহ মাজার সড়ক, ১৫ নং ওয়ার্ডে পল্টন রোড, ব্যাটারি গলি থেকে ৫শ মিটার, সার্সন রোড, ১৬ নং ওয়ার্ডে মুন্সি পুকুর পাড়ে ৪শ মিটার, পাঁচলাইশ জাতিসংঘ পার্কের পেছনে ৫শ মিটার, ১৭নং ওয়ার্ডের সুরোভি আবাসিকে ৫শ মিটার, ২০ নং ওয়ার্ডে রুমঘাটা সড়ক, ২১ নং ওয়ার্ডে আবেদিন কলোনি, আসকার দিঘীর পশ্চিম পাশে ৫শ মিটার, ৩২ নং ওয়ার্ডে কোর্ট বিল্ডিং, ৩৪ নং ওয়ার্ডে ব্রিক ফিল্প রোড, আশরাফ আলী রোড, মনোহর খালী রোড, জলিলগঞ্জ গঙ্গা বাড়ী, ৩৫ নং ওয়ার্ডে ন্যাশনাল ব্যাংক থেকে ৫শ মিটার নতুন মৎস্য ঘাট পর্যন্ত, ২৭ নং ওয়ার্ডে ইসলামিয়া ব্রিক ফিল্ড রোড, মা ও শিশু হাসপাতাল রোড, দুদক রোড, ছোটপুল থেকে খালপাড় সড়ক, হালিশহর রোড, এক্সেস রোড, ফলেস্ট কলোনি থেকে খালপাড় রোড, ৩৭ নং ওয়ার্ডে জলিল শাহ রোডে ১২৫০ মিটার, মুন্সি পাড়া থেকে আজিজ মিয়া কবরস্থান, আব্দুল লতিফ রোড, পোর্ট মার্কেট থেকে ওয়ার্ড অফিস হয়ে মুন্সী পাড়া আনন্দবাজার সড়ক, ৩৮ নং ওয়ার্ডে ধুমপাড়ার সংযোগ সড়ক সমূহ, সল্টগোলা মোড় থেকে আনন্দবাজার গার্বেজ প্ল্যান্ট, ৩৯ নং ওয়ার্ডে ফকির মোহাম্মদ সওদাগর সক, শহিদ নরুজ্জামান সড়ক, নয়া হাট সড়ক, মাবুদ সওদাগর সড়ক, ৪০ নং ওয়ার্ডে মকবুল হোসেন সোসাইটি, খালপাড় সড়ক, পূর্ব কাটঘর সড়ক টিএসপি, খালপাড় পূর্ব রিফাইনারি, মাইজপাড়া রোড, কন্ট্রোল মোড় থেকে টিএসপি মোড়, ৪১নং ওয়ার্ডে নিজাম মার্কেট মেইন রোড, মোল্লা ডেইরি ফার্ম রোড, পতেঙ্গা হোটেল থেকে খাটগড় মোড়, ১নং ওয়ার্ডে সৈয়দ কাশেম রোড, বড় পীর রোড, ফতেয়াবাদ রোড, ঠান্ডাছড়ি রোড, ২নং ওয়ার্ডে কুঞ্জুছায়া আবাসিক এলাকা, ৩নং ওয়ার্ডে শীতল আবাসিক এলাকা, কুয়াইশ সংযোগ এলাকা, ৪নং ওয়ার্ড নতুন চাদগাঁও আবাসিক এলাকা, ৫নং ওয়ার্ডে কালুরঘাট বেসিক শিল্প এলাকা, ৬নং ওয়ার্ডে বারইপাড়া রাস্তা, শাহ ওয়ালিউল্লাহ সড়ক, ৭নং ওয়ার্ডে হিলভিউ আবাসিক সড়ক, ১৮ নং ওয়ার্ডে কল্পোলোক আবাসিক বøক-এ, বøক-বি, কালামিয়া বাজার থেকে বজ্রঘোনা, ১৯নং ওয়ার্ড থেকে কালামিয়া বাজার থেকে ইসহাক সওদাঘরের বাড়ি, ৯নং ওয়ার্ডে কৈবল্লাদাম আশ্রম রোড, ১০ নং ওয়ার্ডে বেসিক শিল্প এলাকা, ১১নং ওয়ার্ডে গ্রীন ভিউ আবাসিক, ১২নং ওয়ার্ডে সিগন্যাল কলোনি থেকে লাকি হোটেল, ১৩ নং ওয়ার্ডে ফ্লোরাপাস রোড, দক্ষিণ খুলশি জাকির হোসাইন রোড, ২৫ নং ওয়ার্ডে চাঁদ জমাদার রোড এবং ২৬ নং ওয়ার্ডে খালপাড় রোড।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন চসিকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ মুহম্মদ তৌহিদুল ইসলাম, চট্টগ্রাম জেলার পিপি শেখ ইফতেখার সাইমুল চৌধুরী, কাউন্সিলর জহর লাল হাজারী, আবদুস সালাম মাসুম, নূর মোস্তফা টিনু, মেয়রের একান্ত সচিব আবুল হাশেম, চসিকের বিদ্যুৎ উপবিভাগের প্রধান তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী ঝুলন কুমার দাশসহ বিদ্যুৎ বিভাগের কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ।