৩০ দিনে সড়কে পুড়েছে ২১২ যানবাহন

8

হরতাল-অবরোধের নামে ২৮ অক্টোবর থেকে ২৮ নভেম্বর সকাল ৬টা পর্যন্ত সর্বমোট ২১২টি যানবাহনে অগ্নিসংযোগ করেছে দুর্বৃত্তরা। গতকাল মঙ্গলবার সকালে ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তরের মিডিয়া সেলের কর্মকর্তা শাহাজাহান শিকদার এ তথ্য জানান। তিনি জানান, ২৮ অক্টোবর থেকে ২৮ নভেম্বর সকাল ৬টা পর্যন্ত ১ মাসে মোট ২২৩টি অগ্নিসংযোগের সংবাদ পেয়েছে ফায়ার সার্ভিস। এর মধ্যে কয়েকটি স্থাপনা থাকলেও অধিকাংশ অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটেছে যানবাহনে।
ফায়ার সার্ভিসের তথ্য মতে, ২৮ অক্টোবর থেকে ২৮ নভেম্বর সকাল ৬টা পর্যন্ত মোট ২১২টি যানবাহনে দুর্বৃত্তরা অগ্নিসংযোগ করেছে।
এর মধ্যে ১৩২টি বাস, ৩৫টি ট্রাক, ১৬টি কাভার্ড ভ্যান, ৮টি মোটরসাইকেল, ২টি প্রাইভেট কার, ৩টি করে মাইক্রোবাস, পিকআপ, সিএনজি, ট্রেন ও লেগুনায় এবং ১টি করে ফায়ার সার্ভিসের গাড়ি, পুলিশের গাড়ি, নছিমন ও অ্যাম্বুলেন্সে অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ১১টি স্থাপনায়ও অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটেছে। এর মধ্যে রয়েছে আওয়ামী লীগ অফিস, পুলিশ বক্স, কাউন্সিলর অফিস, বিদ্যুৎ অফিস, বাস কাউন্টার ও শোরুম। খবর বাংলানিউজের।
এদিকে ফায়ার সার্ভিস জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় দুর্বৃত্তরা ৫টি যানবাহনে আগুন দিয়েছে। এর মধ্যে ঢাকা সিটিতে ১টি, হবিগঞ্জে ১টি, পাবনায় ১টি, টাঙ্গাইলে ১টি ও খুলনায় ১টি যানবাহনে অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটে।
সোমবার (২৭ নভেম্বর) সকাল ৬টা থেকে মঙ্গলবার (২৮ নভেম্বর) সকাল ৬ টা পর্যন্ত বিএনপি-জামায়াতের ডাকা অবরোধে এ সহিংসতার ঘটনা ঘটে।
ফায়ার সার্ভিস জানায়, সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় ১টি ট্রেনের বগি, ৩টি বাস ও ১টি ট্রাক ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এই আগুন নির্বাপণ করতে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের ১০টি ইউনিট ও ৫০ জন জনবল কাজ করে।