১০২ কোটি ডলার দিচ্ছে এডিবি

5

বাংলাদেশের পাঁচ উন্নয়ন প্রকল্পের জন্য ১০২ কোটি ৬৪ লাখ ডলার ঋণ দিচ্ছে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি)। এর মধ্যে ৭২ কোটি ৬৪ লাখ ডলার এডিবি দেবে মার্কিন ডলারে। বাকি ৩০ কোটি ডলারের সমপরিমাণ হিসেবে ২৭ কোটি ৭৮ লাখ ইউরো পাবে বাংলাদেশ। এ বিষয়ে অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগ (ইআরডি) ও এডিবির মধ্যে পাঁচটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে গতকাল মঙ্গলবার। খবর বিডিনিউজের।
রাজধানীর শেরেবাংলা নগরের এনইসি সম্মেলন কক্ষে এসব চুক্তিতে সই করেন ইআরডির নতুন সচিব মো. শাহরিয়ার কাদের ছিদ্দিকী এবং এডিবির আবাসিক প্রতিনিধি এডিমন গিন্টিং।
এক বিজ্ঞপ্তিতে ইআরডি জানায়, এডিবির সঙ্গে চুক্তি অনুযায়ী ৩৫ কোটি ৮২ লাখ ডলার পাওয়া যাবে সহজ শর্ত ও কম সুদের ঋণ হিসেবে। এই ঋণ ৫ বছরের রেয়াতকালসহ ২৫ বছরে ২ শতাংশ সুদে পরিশোধ করতে হবে।
আর বাকি ৬৬ কোটি ৮২ লাখ ডলার কঠিন শর্তের ঋণ। এডিবির অর্ডিনারি ক্যাপিটাল রিসোর্স (ওসিআর) তহবিলের আওতায় এই ঋণের জন্য সিকিউরড ওভারনাইট ফাইন্যান্সিং রেট (সোফর) সুদহারের সঙ্গে ০.৫ শতাংশ এবং ম্যাচুরিটি চার্জ হিসেবে দিতে হবে ০.১ শতাংশ। সবমিলে এই ঋণের জন্য প্রায় ৬ শতাংশ সুদ দিতে হবে।
সা¤প্রতিক সময়ে বিশ্ব বাজারে অস্বাভাবিকভাবে সুদের হার বৃদ্ধি পাওয়ায় এই সুদের হার বেড়েছে। স্বাভাবিক সময়ে এটা ৪ শতাংশের নিচে নেমে থাকত।
ইআরডি জানায়, এডিবি যে পাঁচ প্রকল্পে ঋণ দিচ্ছে তার মধ্যে একটি হচ্ছে এসেনসিয়াল ড্রাগস কোম্পানি লিমিটেড ও ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের অধীনে বাস্তবায়নাধীন ‘ভ্যাকসিন, থেরাপেটিকস অ্যান্ড ডায়াগনস্টিকস ম্যানুফ্যাকচারিং অ্যান্ড রেগুলারেটরি স্ট্রেংদেনিং’ প্রকল্প।
বিভিন্ন রোগের প্রাদুর্ভাব মোকাবিলায় টিকার ক্রমকর্ধমান চাহিদা পূরণ এবং টিকা উৎপাদনের লক্ষ্যে আন্তর্জাতিক মানের একটি গবেষণাগার প্রতিষ্ঠা করা এ প্রকল্পের লক্ষ্য।
এ প্রকল্পের জন্য মোট দেওয়া হচ্ছে ৩৩ কোটি ৬৪ লাখ ডলার। এরমধ্যে ১৬ কোটি ৮২ লাখ ডলার দেওয়া হবে কম সুদের ঋণ। আর ১৬ কোটি ৮২ লাখ দেওয়া হচ্ছে বেশি সুদের ঋণ।
এই চুক্তির আওতায় অর্থায়নের দ্বিতীয় প্রকল্প হচ্ছে ‘সাউথ এশিয়া সাব রিজিওনাল ইকোনমিক কো-অপারেশন ঢাকা-নর্থওয়েস্ট করিডোর রোড প্রজেক্ট ফেজ-টু’ প্রকল্প। এ প্রকল্পের জন্য দেওয়া হচ্ছে ২৭ কোটি ৭৮ লাখ ডলার। এ প্রকল্পের জন্যও ঋণ নেওয়া হচ্ছে ওসিআর বা কঠিন শর্তের তহবিল থেকে।