হাটহাজারী আঞ্চলিক কৃষি গবেষণা কেন্দ্র সড়কের বেহাল অবস্থা

19

মো. আবু তালেব, হাটহাজারী

পিচঢালা সড়ক, নাকি মাটির সড়ক চেনার উপায় নাই। সড়কে কার্পেটিং উঠে গিয়ে শতাধিক ছোট-বড় খানাখন্দের সৃষ্টি হয়েছে। আধা কিলোমিটার জুড়ে সড়কের কোন চিহ্নমাত্র নেই। এতে হাটহাজারী আঞ্চলিক কৃষি গবেষণা কেন্দ্র সড়কটিতে (কৃষিফার্ম রোড) যানবাহন চলাচল অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। গত আট বছর ধরে পৌরসভার ১নং ওয়ার্ডের এ জনগুরুত্বপূর্ণ সড়কটির এমন বেহাল দশা চলতে থাকায় জনদুর্ভোগ চরমে পৌঁছেছে। জানা যায়, চট্টগ্রাম-খাগড়াছড়ি মহাসড়কের শাখা সড়ক কৃষিফার্ম রোড দিয়ে আঞ্চলিক কৃষি গবেষণা কেন্দ্র, কৃষি প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট (এটিআই), হর্টিকালচার সেন্টার, স›দ্বীপ পাড়া জুনিয়র উচ্চ বিদ্যালয় ও প্রাথমিক বিদ্যালয়, সেনাবাহিনী ফায়ারিং রেঞ্জসহ ছোট-বড় পাঁচটি শিল্প করাখানার যানবাহনসহ ৩০ হাজার মানুষ প্রতিদিন শত ভাড়ায় চালিত সিএনজি অটোরিকশায় চলাচল করে। সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, সড়কের প্রথম থেকে সোয়া এক কিলোমিটার পর মহারাজা মুন্সি বাড়ি এলাকা থেকে পশ্চিমে সড়কের কাপেটিং উঠে গিয়ে অনেক জায়গায় খোয়া, বালু ও পিচের চিহ্নমাত্র নেই। সড়কের ইটের টুকরোগুলো উঁচু-নিচু হয়ে স্থানে স্থানে ছোট-ছোট পুকুরের মত শতাধিক গর্ত ও খানাখন্দের সৃষ্টি হয়ে যানবাহন চলাচলে বিঘœ সৃষ্টি করছে। হাটহাজারী আঞ্চলিক কৃষি গবেষণা কেন্দ্রের মূখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ডক্টর খলিলুর রহমান ভূঁইয়া জানান, সড়কটি দীর্ঘদিন সংস্কার ও মেরামত না করায় সড়কে ছোট-বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। এতে করে প্রতিনিয়ত সড়কে বিকল হচ্ছে যানবাহন। সীমাহীন দুর্ভোগে পড়েছে সড়ক দিয়ে চলাচলকারী স্থানীয় জনসাধারণ। তাই জনগুরুত্বপূর্ণ আঞ্চলিক কৃষি গবেষণা সড়কটি দ্রুত মেরামত করা প্রয়োজন। এ ব্যাপারে হাটহাজারী পৌরসভার সহকারী প্রকৌশলী বেলাল আহমদ খাঁন বলেন, হাটহাজারী পৌরসভা গঠন থেকে কৃষিফার্ম রোডটির এমন দশা। পৌরসভার অর্থায়নে সড়কের প্রথমে ১.২ কিলোমিটার সংস্কার করা হয়েছে। পাঁচ কিলোমিটর সড়কের বাকী সাড়ে তিন কিলোমিটর সড়ককে যানবাহন চলাচল অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। সড়কটি মেরামত করতে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।