সেরা জনপ্রিয় শিল্পী নেহা কক্কর ও শ্রেয়া ঘোষাল

91

ভারতে সর্বাধিক জনপ্রিয় নারী সংগীতশিল্পীদের তালিকা প্রকাশ করেছে সুইডেনভিত্তিক সংগীত পরিবেশনা সংস্থা স্পটিফাই। এই তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন নেহা কক্কর। তার পরেই রয়েছেন শ্রেয়া ঘোষাল, আশীষ কৌর, ধ্বনি ভানুশালিসহ অন্যরা।
বিশ্বজুড়ে জনপ্রিয় মিউজিক স্ট্রিমিং সার্ভিস স্পটিফাই আন্তর্জাতিক নারী দিবসে ভারতের সেরা ১০ জন নারী শিল্পীর নাম প্রকাশ করেছেন। চলতি বছরের ১ জানুয়ারি থেকে ১ মার্চ পর্যন্ত স্পটিফাইয়ে সবচেয়ে বেশিবার স্ট্রিমিং হয়েছে যাদের গান তাদের নামের তলিকা এটি। এই তালিকায় সবার শীর্ষে রয়েছেন নেহা কক্কর।
নেহা কক্কর : সাড়া জাগানো রিয়েলিটি শো ইন্ডিয়ান আইডলের দ্বিতীয় সিজনেই জনপ্রিয় হয়ে ওঠেন নেহা কক্কর। সংগীত শিল্পে তিনি প্রবেশ করেন তার প্রথম অ্যালবাম ‘নেহা দ্য রক স্টার’ দিয়ে। এতে মিট ব্রাদার্সের সঙ্গে কাজ করেছিলেন নেহা। ‘ব্লু’ সিনেমার মধ্য দিয়ে তার বলিউডে অভিষেক। এরপর একের পর এক হিন্দি সিনেমায় নেহা তার সুরের জাদু দেখিয়েই চলেছেন।
শ্রেয়া ঘোষাল : নেহা কক্করের মতো শ্রেয় ঘোষালও একটি রিয়েলিটি শো’র মাধ্য উঠে আসেন। সেটি ছিল ‘সা রে গা মা’। বিখ্যাত চিত্রনির্মাতা সঞ্জয় লীলা ভানসালির সুনজরে পড়েন তিনি। সুপারহিট ‘দেবদাস’ সিনেমায় প্রথম গান করেন শ্রেয়া। এখন পর্যন্ত চারটি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন তিনি।
আশীষ কৌর : ‘দিলদারা রিপ্রাইজ’ সিনেমার মধ্য দিয়ে বলিউডে অভিষেক করেছিলেন কণ্ঠশিল্পী আশীষ কৌর। ‘কেসরি’ সিনেমার ‘বে মাহি’ এবং ‘ড্রাইভ’র ‘মাখনা’ গানের জন্যও তিনি দারুণ জনপ্রিয়।
ধ্বনি ভানুশালি : বলিউডের অন্যতম নতুন মুখ ধ্বনি। তার জনপ্রিয় গানের মধ্যে ‘চেফ’ সিনেমার ‘তেরে মেরে রিপ্রাইজ’, ‘বদ্রিনাথ কি দুলহানিয়া’ সিনেমার ‘হামসাফার অ্যাকোয়াস্টিক’, ‘বীরে দি ওয়েডিং’ সিনেমার ‘বীরে’ গানটি উল্লেখযোগ্য।
তুলসী কুমার : টি-সিরিজের প্রতিষ্ঠাতা গুলশান কুমারের মেয়ে তুলসী কুমার। ‘চুপ চুপ কে’, ‘হামকো দিওয়ানা কার গায়ে’ এবং ‘আকসার’ সিনেমায় তিনি গান গেয়েছেন। প্রীতম, হিমেশ রেশমিয়া, অনু মালিক, গুরু রণধাওয়া প্রমুখের সঙ্গে তিনি কাজ করেছেন।
এছাড়াও স্পটিফাইয়ের সেরা দশজনের তালিকায় রয়েছেন যথাক্রমে পরম্পরা ঠাকুর, সেলেনা গোমেজ, বিলি ইলিশ, ক্যামিলা ক্যাবেলো এবং হ্যালসি।