শ্রীলঙ্কার নতুন প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমাসিংহে

12

পূর্বদেশ অনলাইন
অবশেষে শ্রীলঙ্কার নতুন প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিলেন রনিল বিক্রমাসিংহে। বৃহস্পতিবার পাঁচবারের সাবেক এই প্রধানমন্ত্রী ও শ্রীলঙ্কার ইউনাইটেড ন্যাশনাল পার্টির (ইউএনপি) নেতাকে শপথ পড়ান প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া রাজাপাকসে। এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি। মাহিন্দা রাজাপাকসে গত সোমবার পদত্যাগ করার পর তার স্থলাভিষিক্ত হলেন তিনি। এর আগে বুধবার সন্ধ্যায় প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া রাজাপাকসের সঙ্গে রুদ্ধদ্বার বৈঠক করেন বিক্রমাসিংহে। এরপরই তিনি নতুন প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন বলে খবর ছড়িয়ে পড়ে। রনিল বিক্রমাসিংহের জন্ম ১৯৪৯ সালের ২৪ মার্চ। সিলন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইন বিষয়ে পড়াশোনা শেষ করেন তিনি। সত্তরের দশকের মাঝামাঝি সময়ে তিনি রাজনীতিতে যোগ দেন। প্রেসিডেন্ট গোটাবায়ার পদত্যাগের দাবিতে দেশজুড়ে তীব্র আন্দোলন চলে আসছে শ্রীলঙ্কায়। তবে ক্ষমতা ছাড়তে অস্বীকৃতি জানিয়ে বুধবার তিনি বলেন, ‘আমি এমন একজন প্রধানমন্ত্রীর নাম দেবো যিনি সংসদে সংখ্যাগরিষ্ঠ ও জনগণের আস্থা অর্জন করবেন।’ এরমধ্যেই বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে রনিল বিক্রমাসিংহেকে শপথ পড়ালেন প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া।
সহিংস আন্দোলনের জেরে বাধ্য হয়ে গত সোমবার মাহিন্দা রাজাপাকসে প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে সরে দাঁড়ান। তার সমর্থকেরা সরকারবিরোধী বিক্ষোভকারীদের ওপর চড়াও হওয়ার পর এই সিদ্ধান্ত নেন তিনি। ভয়াবহ অর্থনৈতিক সংকটে থাকা শ্রীলঙ্কায় কয়েক দিনের সহিংসতায় অন্তত নয় জন নিহতের পাশাপাশি দুই শতাধিক আহত হয়েছেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে জারি করা হয় কারফিউ। নিরাপত্তা বাহিনীকে বিশেষ ক্ষমতা দিয়ে দাঙ্গাকারীদের দেখামাত্র গুলি চালানোর নির্দেশ দেওয়া হয়। বৃহস্পতিবার সকালে ছয় ঘণ্টার জন্য কারফিউ প্রত্যাহার করেছে দেশটির সরকার।