শ্রম আইন ভঙ্গে স্যামস্যাং প্রধানের ১৮ মাসের কারাদণ্ড

36

শ্রম আইন ভঙ্গের দায়ে বিশ্বখ্যাত মোবাইল নির্মাতা প্রতিষ্ঠান স্যামসাং চেয়ারম্যান লি সাং হুনের ১৮ মাসের কারাদণ্ড হয়েছে। দক্ষিণ কোরিয়ার এক আদালত এই রায় দিয়েছে। তাৎক্ষণিকভাবে রায়ের ব্যাপারে কোনও মন্তব্য করেনি স্যামসাং। ২০১৩ সালে স্যামসাং ইলেকট্রনিক্স সার্ভিসে কাজ করা কর্মীরা একটি ইউনিয়ন করতে চেয়েছিলেন। কিন্তু সংস্থার প্রধান কর্মকর্তারা তাতে বাধা দেন বলে অভিযোগ ওঠে। শ্রমিকদের ইউনিয়ন করতে না দেয়ার অভিযোগ উঠেছিল লি স্যাং-হুনের বিরুদ্ধে। স্যামসাং ইলেক্ট্রনিক্স মেরামত ইউনিট, স্যামসাং ইলেকট্রনিক্স সার্ভিসে সাব-কন্ট্রাক্ট শ্রমিকরা চেয়ারম্যান লিসহ আরও ২৫ জনকে অভিযুক্ত করে এই মামলা করেছিলেন।
চেয়ারম্যান লি একটি কাস্টমার সার্ভিস ইউনিটের প্রধান অর্থনৈতিক কর্মকর্তা থাকাবস্থায় ইউনিয়নের কাজ খাটো করে দেখাতে বিভিন্ন পদক্ষেপ নিয়েছিলেন। মঙ্গলবার সিউল জেলা আদালতে মামলার রায়ে সেগুলোই উঠে এসেছে। রায়ে চেয়ারম্যঅন লি সাং ও নির্বাহী ভাইস প্রেসিডেন্ট ক্যাং কিউং হুনের ১৮ মাসের জেল হয়।তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ তারা শ্রম আইন ভঙ্গ করেছে। বিচারকার্যের সময় তারা জামিনে ছিলেন কিন্তু রায় ঘোষণার পর তাদের পুলিশি হেফাজতে নেওয়া হয়। লি এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। তবে আপিল করবেন কি না তা এখনও জানা যায়নি।