রাজস্থলীতে ২ বীর মুক্তিযোদ্ধা পাচ্ছেন বীর নিবাস

2

রাজস্থলী প্রতিনিধি

স্বাধীনতার সূবর্ণ জয়ন্তী ও জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবার্ষিকী উপলক্ষে ত্রিশ হাজার অসচ্ছল মুক্তিযুদ্ধাকে একতলা পাকা ঘর তৈরি করে দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। রাঙামাটি জেলাধীন রাজস্থলী উপজেলার ২ জন অসচ্ছল বীর মুক্তিযুদ্ধাদের নামে বীর নিবাস বাসস্থান নির্মাণের জন্য প্রস্তাবনা পাঠানো হয়েছে। তারমধ্যে একটি নিবাস নির্মাণের বরাদ্ধ এসেছে বলে উপজেলা নির্বাহী অফিসার শান্তনু কুমার দাশ জানান। মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে অসচ্ছলবীর মুক্তিযুদ্ধাদের জন্য আবাসন নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় ২০২১-২২ অর্থ বছরে প্রথম পর্যায়ে বরাদ্ধ অনুযায়ী ২টি সরকারি আবাসন নির্মাণ করবে উপজেলা প্রশাসন। এর আগে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় এর নীতিমালা ও প্রজ্ঞাপন নির্দেশিকা অনুযায়ী অসচ্ছল/ ভূমিহীন বীর মুক্তিযোদ্ধা দের জন্য আবাসন বরাদ্ধ সংক্রান্ত উপজেলা কমিটির সভায় ০২ জন অসচ্ছল/ভূমিহীন বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নামের তালিকা চুড়ান্ত করে তাদের নামে বাসস্থান বরাদ্ধের জন্য অসচ্ছল বীর মুক্তিযোদ্ধাদের আবাসন বরাদ্ধ কমিটির সভাপতি ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার একটি তালিকা তৈরি করে জেলা প্রশাসকের নিকট প্রেরণ করেন। প্রেরিত তালিকা অনুযায়ী বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নামে বীর নিবাস নামে আবাসন নির্মাণ বরাদ্ধ প্রথম পর্যায়ে ২টি বীর নিবাস আসার নিশ্চিত করে উপজেলা নির্বাহী অফিসার শান্তনু কুমার দাশ। রাজস্থলীতে বীর নিবাস প্রাপ্তরা হলেন- ১নং ঘিলাছড়ি ইউনিয়নের মৃত আবুল কাসেমের স্ত্রী ফাতেমা বেগম, ও বাঙালহালিয়া ইউনিয়নের রুহুল আমিন। উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা রবিউল ইসলাম এ প্রতিনিধিকে জানান, বীর নিবাস নির্মাণের জন্য পরির্দশন ও যাচাই-বাছাই শেষে ১ জন বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নামে বরাদ্ধ পাওয়া গেছে। প্রতিটি বাসস্থান নির্মাণে ১৩ লাখ ৪৩ হাজার ৬১৮ টাকা বরাদ্ধ করা হয়েছে। এর মধ্যে ভ্যাট ৩% আয়কর সাড়ে ৭ মোট সাড়ে ১০% বাদে প্রতিটি বাসস্থান নির্মাণে নিট ব্যয় হবে ১২ লাখ ২ হাজার ৫৩৮ টাকা।