ভাত খাওয়া নিয়ে কোনো কথা বলিনি: কৃষিমন্ত্রী

13

 

ভাত বেশি খাওয়ার কিংবা চালে দাম বৃদ্ধি এমন কোনো মন্তব্য করেননি বলে জানিয়েছেন কৃষিমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলির সদস্য ড. আব্দুর রাজ্জাক। তিনি বলেন, মানুষের পুষ্টির চাহিদা মেটানোর কথা বলেছি। ভাত বেশি খাওয়া কিংবা চালের দাম নিয়ে কোনো কথা আমি কোনো দিনই বলিনি, আমি এ প্রসঙ্গই আনিনি। গতকাল শুক্রবার সিরডাপ মিলনায়তনে আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপ কমিটি আয়োজিত বিশ্ব জলবায়ু সম্মেলন ২০২১ বাংলাদেশে প্রত্যাশা-শীর্ষক সেমিনারে কৃষিমন্ত্রী একথা বলেন। খবর বাংলানিউজের
কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেন, ধানের জাত এবং চাষাবাদ কেমন হওয়া উচিত, যেগুলোর ওপরেও আমাদের বিজ্ঞানীরা কাজ করছেন। মানুষের খাদ্য নিরাপত্তা একটি বিষয় ছিল। আমরা চাল জাতীয় খাবারে অনেকটা নির্ভারশীল। যদি ভালো আবহাওয়া থাকে আমাদের কোনো সমস্যা হয় না।
মন্ত্রী বলেন, কিন্তু এখন আমাদের লক্ষ্য হলো পুষ্টি জাতীয় খাবার। এটি আমাদের নির্বাচনী ইশতেহারে বলেছি, আমরা পুষ্টি জাতীয় খাবার এবং সি ফুড মানুষকে দেব। এটাই এখন আমাদের চ্যালেঞ্জ। এটা করার জন্য কৃষিকে আরও আধুনিক করতে হবে। মানুষের পুষ্টির চাহিদা মেটানোর কথা বলেছি। একটি পত্রিকা নিউজ করেছে, মানুষ ভাত বেশি খায় এজন্য চালের দাম বেড়ে গেছে। এ ধরনের কথা আমি কোনো দিনই বলিনি। আমি এ প্রসঙ্গই আনি নি।
ড. রাজ্জাক বলেন, আমাদের সরকারের লক্ষ্য হলো আগামী প্রজন্মকে সৃজনশীল ও মেধাবী করার মানুষকে পুষ্টিজাতীয় খাবার দিতে হবে। জলবায়ু পরিবর্তনের জন্য আমরা কৌশলগত পরিকল্পনা করেছি। আমরা যখন সরকারে এসেছি তখন থেকেই এগুলো শুরু করেছি।
এ সেমিনারে সভাপতিত্ব করে আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ উপ কমিটির চেয়ারম্যান খন্দকার বজলুল হক। স্বাগত বক্তব্য রাখেন উপ কমিটির সদস্য সচিব দেলোয়ার হোসেন। মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের অধ্যাপক দেলোয়ার হোসেন। বক্তব্য রাখেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ উপাচার্য় অধ্যাপক ড. এ এস এম মাকসুদ কামাল, বাংলাদেশে সেন্ট্রার ফর অ্যাডভান্স স্টাডিজের নির্বাহী পরিচালক ড. আতিক রহমান ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক সাদেকা হালিম।