বোলার থেকে ব্যাটসম্যান মেহেদী!

27

গতকাল চট্টগ্রামের ব্যাটিং উইকেটে নিজেকে আবারও প্রমাণ করলেন মেহেদী হাসান। আগের দিন ম্যাচ সেরা হওয়ার পর সংবাদ সম্মেলনে নিজেকে মূল্যহীন উইকেট দাবি করেছিলেন তিনি। তবে এবার ভালো খেলার প্রতিদান হিসেবে সিলেট থান্ডারের বিপক্ষে মাঠে নামানো হয়েছে বলে দাবি এ তরুণ ক্রিকেটারের। মঙ্গলবার চট্টগ্রামে জহুর আহমদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ঢাকা প্লাটুন বনাম সিলেট থান্ডারের ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘গতকাল ভালো খেলার জন্য আজ পজিশনটা পাওয়া গেছে। নিজেকে বদলে ফেলার কিছু নেই। আমরা এখনও শিখছি।’ ঢাকা প্লাটুনের হয়ে খেলতে নামা মেহেদী হাসান বল হাতে তেমন জ্বলে না ওঠলেও ব্যাটিংয়ে পুষিয়ে দিয়েছেন ভালোভাবেই। ২৮ বলে ৫ চার এবং ৩ ছয়ে করেছেন ৫৬ রান। ওপেনার এনামুল হক বিজয় আউট হওয়ার পর তিনে ব্যাটিংয়ে নামেন তিনি।
ক্যারিয়ারের শুরুতে টপ অর্ডারে খেলা শুরু করলেও পরের দিকে নিজেকে বোলার হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করার কথা জানান তিনি। মূলত কোন পজিসনে খেলতে অভ্যস্ত, সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে মেহেদী বলেন, ‘বোলার হওয়ায় আমাকে পজিশন পরিবর্তন করে খেলানো হতো। তাছাড়া যতগুলো বিপিএল খেলেছি সবগুলোতে দলের অনেক বড় ব্যাটিং লাইনআপ ছিল। তাই তেমন একটা সুযোগ হতো না।’ এবার দলে সুযোগ পাওয়ার বিষয়ে মেহেদি বলেন, ‘আমাদের দলে ইনজুরি সমস্যা আছে। তাই আমাকে এই পজিশনে খেলানো হয়েছে। আল্লাহর রহমতে আমি সফল হয়েছি। সামনে আরও ভালো করতে হবে।’ এসময় নিজেকে ক্যালকুলেটিভ ব্যাটসম্যান চিন্তা না করতে সাংবাদিকদের অনুরোধ জানান তিনি। মাঠে তামিমের সঙ্গে কেমন বোঝাপড়া, তা জানতে আগ্রহী সাংবাদিকদের মেহেদি বলেন, ‘তামিম ভাই আমাকে সব সময় সাপোর্ট দিচ্ছিল। শেষের দিকে আমাকে বলছিল খেলা শেষ করতে। কিন্ত আমি ভুল করে ফেলছি। একসঙ্গে শেষ করতে পারলে ভালো হতো।’ এবারের বিপিএলে ঢাকা প্লাটুন ৬ ম্যাচের চারটিতে জিতে টেবিলের ২ নম্বরে অবস্থান করছে।