বরকলে হযরত মামুন খলিফা(রহঃ) মহিলা জামে মসজিদের উদ্বোধন

10

চন্দনাইশ প্রতিনিধি

চন্দনাইশের বরকলে ৩০৩ বছরের প্রাচীন পবিত্র ইসলাম ধর্মের অন্যতম অনুপম মুসলিম নিদর্শন হযরত মামুন খলিফা (রহঃ) শাহী জামে মসজিদের পাশে ১ হাজার মহিলারা জামাতে নামাজ আদায়ের জন্য দক্ষিণ চট্টগ্রামের প্রথম নতুন ভবন উদ্বোধন করেন মো. নজরুল ইসলাম চৌধুরী এমপি। গতকাল ১ ডিসেম্বর (শুক্রবার) সকালে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তকরির করেন মিডিয়া ব্যক্তিত্ব আমেরিকান প্রবাসী ড. মাও. সাইফুল আজম বাবর আল আজাহারী। নামাজের স্থানের নামকরণ ফলক উম্মোচন করেন মোতাওয়াল্লী পরিবারের সদস্য রেজিয়া বেগম। প্রথম জুমার নামাজে দেড় সহ¯্রাধিক মহিলাসহ ৫ সহা¯্রাধিক মানুষ নামাজে অংশ নেন। মোতাওয়াল্লী আরিফুল ইসলাম খোকনের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আবদুল জব্বার চৌধুরী, থানা অফিসার ইনচার্জ ওবাইদুল ইসলাম, উপজেলা আ.লীগের সভাপতি জাহিদুল ইসলাম জাহাঙ্গীর, আ.লীগ নেতা হাবিবুর রহমান, জসিম উদ্দীন চৌধুরী মন্টু, দোহাজারীর মেয়র লোকমান হাকিম, চেয়ারম্যান আবদুর রহিম চৌধুরী, দিদারুল আলম চৌধুরী, তৌহিদুল আলম, মুরিদুল আলম, চন্দনাইশ প্রেস ক্লাবের সভাপতি এডভোকেট মো. দেলোয়ার হোসেন, আ.লীগ নেতা সাইফুর রহমান, ফরিদুল আলম চৌধুরীসহ বিভিন্ন স্তরের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। প্রতিদিন ৫ ওয়াক্ত নামাজে মহিলাদের জামাতে নামাজ পড়ার সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে।
উল্লেখ্য যে, তৎকালীন সময়ে প্রায় ১৭২০ খ্রি: ইসলাম প্রচারে এসে মামুন খলিফা(রহঃ) স্থানীয়দের সহায়তায় সর্ব প্রথম একটি মাটির মসজিদ প্রতিষ্ঠা করেন। সেই থেকে হযরত মামুন খলিফা (রহঃ)’র নামেই ওই শাহী জামে মসজিদটি ইসলামের এক অনুপম নিদর্শন হিসাবে দেশে সুখ্যাতি ছড়িয়ে পড়ে। প্রচলিত আছে এক সময় এই মসজিদকে গায়েবী মসজিদ হিসাবে দেখতেন এলাকাবাসী। প্রতিদিন দূর-দূরান্ত থেকে পুরুষ-মহিলা ধর্মপ্রাণ মুসল্লিগণ বিশ^াস নিয়ে ছুটে আসেন এ মসজিদে সালাত আদায় করতে। মহিলাদের জামাতে নামাজ আদায়ের জন্য আলাদাভাবে জামে মসজিদের পাশে ২ কোটি ১২ লক্ষ টাকা ব্যয়ে দ্বিতল বিশিষ্ট ভবন নির্মাণ করা হয়। যা বিগত ৩ বছর পূর্বে নির্মাণ কাজ শুরু করা হয়েছিল বলে জানিয়েছেন মসজিদের মোতাওয়াল্লী আরিফুল ইসলাম খোকন। মসজিদের পাশাপাশি হেফজ ও এতিমখানা, এবতেদায়ী মাদ্রাসা স্থাপন করা হয়েছে। গতকাল ১ ডিসেম্বর থেকে প্রতি শুক্রবার, সোমবার, বৃহস্পতিবার বিকাল ৩ টা থেকে ৫ টা পর্যন্ত মহিলাদের ৩ জন মহিলা প্রশিক্ষক নামাজ ও কোরআন শিক্ষা দেবেন।