ফটিকছড়িতে ফরমপূরণের ‘আবদার’ না রাখায় অকৃতকার্যদের তানডব থানায় অভিযোগ

39

ফটিকছড়ির গুলতাজ স্কুল এন্ড কলেজে এসএসসি নির্বাচনী পরীক্ষায় অকৃতকার্য শিক্ষার্থীদের অনায্য দাবি ও প্রতিষ্ঠানে হামলা করার হুমকির পরিপ্রেক্ষিতে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে প্রতিষ্ঠানটির অধ্যক্ষ সেলিম জাহাঙ্গীর । গত ৩ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় তিনি এ অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগে ২৪ জন শিক্ষার্থীকে অভিযুক্ত করা হয়।
৪ ডিসেম্বর সকালে অধ্যক্ষের কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে তিনি এসব কথা জানান। এ সময় তিনি বলেন, এবারের এসএসসি নির্বাচনী পরীক্ষায় আমাদের প্রতিষ্ঠানে ৯২জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। তম্মধ্যে ৬৩জন শিক্ষার্থী সব বিষয়ে কৃতকার্য হয়। কৃতকার্যদের আমরা নির্বাচনী পরীক্ষায় ফরম পূরণ করার সুযোগ দিই। বোর্ডেও নির্দেশনা অনুযায়ী এক বা একাধিক বিষয়ে অকৃতকার্য শিক্ষার্থীদের আমরা ফরম পূরণে সুযোগ দিতে পারছিনা। এ নিয়ে অকৃতকার্য শিক্ষার্থীরা এলাকার বখাটেদের সাহায্যে প্রতিষ্ঠানে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করছে। মঙ্গলবার দুপুরে তারা প্রতিষ্ঠানে দরজা-জানালা ভাংচুর করে। এ সময় তারা প্রতিষ্ঠানে চলা অন্য শ্রেণির পরীক্ষা বন্ধ করে দেওয়ার হুমকি প্রদান করে। এর পরিপ্রেক্ষিতে আমরা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবরে জানায় এবং তার পরামর্শ অনুযায়ী থানায় অভিযোগ দায়ের করি।
সংবাদ সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- প্রতিষ্ঠানের গভর্নিং বডির সদস্য সোহরাব জব্বার চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা মো. ইলিয়াছ, ফরিদুল আলম, অধ্যাপক খোরশেদুল আলম এনাম, অধ্যাপিকা শাহনাজ শারমিন, মাওলানা আবু তাহের নঈমী, প্রভাষক সৈয়দ মুহাম্মদ মাসুদ। গত ক’দিন ধরে এসএসসি’র ফরম পূরণ নিয়ে গুলতাজ মেমোরিয়াল স্কুল এন্ড কলেজে অকৃতকার্য শিক্ষার্থী, অভিভাবক ও প্রতিষ্ঠানের মধ্যে বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি বিরাজ করছে।