প্রস্তাবিত প্রকল্পে চসিক জায়গা দেবে : মেয়র

12

চসিক মেয়র এম. রেজাউল করিম চৌধুরী বলেছেন, নগরীতে ডাম্পিং স্টেশনে স্ত‚পকৃত বর্জ্য শোধন করে বিদ্যুৎসহ নিত্য ব্যবহার্য পণ্য রূপান্তন প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে আমাদের নিজস্ব সক্ষমতা বৃদ্ধি পাবে এবং নগরী পরিবেশ বান্ধব হবে।
তিনি বলেন, সিটি কর্পোরেশনের নিজস্ব জায়গায় আয়বর্ধক প্রকল্প বাস্তবায়নে দেশি-বিদেশি বিনিয়োগকে স্বাগত জানাই এবং যেকোন ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানকে সুনির্দিষ্ট নীতিমালা ও শর্ত অনুযায়ী জায়গা বন্দোবস্তী দেয়া হবে।
তিনি গতকাল সোমবার সকালে টাইগারপাসস্থ চসিক অস্থায়ী ভবনে হালিশহর ডাম্পিং স্টেশনে বর্জ্য থেকে বিদ্যুৎ উৎপাদন প্লান্ট স্থাপনে আগ্রহী চায়নিজ ইনভেস্টর এসোসিয়েশনের প্রকল্প বাস্তবায়ন প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিদলের সাথে সাক্ষাতে এ কথা বলেন।
মেয়র বলেন, সাবেক মেয়র এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী বর্জ্য ও থেকে বিদ্যুৎ ও নিত্য ব্যবহার্য পণ্য উৎপাদনে প্রকল্প বাস্তবায়নের উদ্যোগ গ্রহণ করেছিলেন। সেই পথ ধরেই তার অসম্পূর্ণ উদ্যোগ বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে চাই। তিনি প্রতিনিধিদলের উদ্দেশে বলেন, আমরা জায়গা দেবো। সরকার থেকে প্রস্তাবিত প্রকল্পের অনুমোদন ও যাবতীয় ব্যয় নির্বাহ আপনাদেরকে করতে হবে। এর জবাবে প্রতিনিধি দলের পক্ষে বলা হয়, আমরা এ ধরনের প্রকল্প ঢাকাসহ অন্যান্য ৩৪টি দেশে বাস্তবায়ন করেছি। আমাদের শুধু জায়গা দিলে আমরা বর্জ্য থেকে বিদ্যুৎ উৎপাদন প্লান্ট স্থাপন বাস্তবায়ন করবো।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন কাউন্সিলর আবুল হাসনাত মো. বেলাল, হাজী নুরুল হক, মেয়রের একান্ত সচিব মুহাম্মদ আবুল হাশেম, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী (যান্ত্রিক) সুদীপ বসাক, নির্বাহী প্রকৌশলী মীর্জা ফজলুল কাদের, চাইনিজ ইনভেস্টর এসোসিয়েশনের সভাপতি লিও ঝাং, ফিটস গ্রূপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহাদাত হোসেন ও সুনজি তিনইং। খবর বিজ্ঞিপ্তি