প্রদীপ ও চুমকির বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ

11

পূর্বদেশ অনলাইন
অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে দুদকের করা মামলায় অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান হত্যা মামলায় মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি, টেকনাফ থানার বরখাস্ত হওয়া ওসি প্রদীপ কুমার দাশ ও তার স্ত্রী চুমকি কারনের বিরুদ্ধে দুদকের পক্ষে সাক্ষ্যগ্রহণ শেষ হয়েছে। সোমবার (২৩ মে) দুপুরে চট্টগ্রাম বিভাগীয় বিশেষ জজ মুন্সী আবদুল মজিদের আদালতে সাক্ষ্যগ্রহণ হয়। দুর্নীতি দমন কমিশনের আইনজীবী মাহমুদুল হক মাহমুদ বলেন, অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে দুদকের করা মামলায় প্রদীপ কুমার দাশ ও তার স্ত্রী চুমকি কারনের বিরুদ্ধে আদালতে ২৪ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ হয়েছে। নতুনভাবে আর কোনও সাক্ষ্যগ্রহণ করা হবে না। সোমবার আদালতে সর্বশেষ সাক্ষী মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মো. রিয়াজ উদ্দিনের সাক্ষ্যগ্রহণ করা হয়েছে। ২৯ মে আসামি পক্ষ থেকে মো. রিয়াজ উদ্দিনকে জেরা করা হবে।
গত ১৫ ডিসেম্বর প্রদীপ কুমার দাশ ও তার স্ত্রী চুমকি কারনের বিরুদ্ধে অবৈধ সম্পদ অর্জনের মামলায় চার্জ গঠন হয়। গত ২৬ জুলাই দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয় চট্টগ্রাম-২ এর সহকারী পরিচালক মো. রিয়াজ উদ্দিন অভিযোগপত্র দাখিল করেন। গত ১ সেপ্টেম্বর অভিযোগপত্রের ওপর শুনানি হয়। সোমবার (২৩ মে) দুপুর ১২টায় চুমকি কারন চট্টগ্রাম বিভাগীয় বিশেষ জজ মুন্সী আবদুল মজিদের আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিনের আবেদন করেন। শুনানি শেষে বিচারক জামিন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। এসময় প্রদীপ কুমার দাশও উপস্থিত ছিলেন।