নির্যাতিত মনোয়ারা হামলার পর বাড়ি পুড়িয়ে বসতভিটা দখল চেষ্টার অভিযোগ

38

আমার স্বামীর মৃত্যুর পর ছেলে-মেয়েদের নিয়ে অনেক দুঃখ-কষ্টে একটি সেমিপাকা বাড়ি নির্মাণ করে দীর্ঘদিন ধরে বসবাস করে আসছি। এখনো কোন রকমে দু-মুঠো ভাত খেয়ে-না খেয়ে জীবনযাপন করছি। আমাদের এ অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে এলাকার কতিপয় চিহ্নিত দুষ্কৃতকারী আমার বসতভিটার জায়গাটি দখল করে নিতে বিভিন্নভাবে পায়তারা চালাচ্ছে। এরই সূত্র ধরে গত ২২ নভেম্বর বিকেল ৪টার দিকে এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী শাহজাহান, বুলু আক্তার, হামিদ, রিয়াদুল্লা, মনির আহমদ ও তার মা পাখি আক্তারকে নিয়ে আমার বসতভিটায় এসে আমি এবং ছেলে রায়হানের উপর অতর্কিতভাবে হামলা করে মারাত্মভাবে আহত করে। এতে মারাত্মকভাবে আঘাতপ্রাপ্ত হয়ে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হই। এ ঘটনার একদিন পর আমরা চিকিৎসাধীন থাকাবস্থায় গত ২৪ নভেম্বর গভীর রাতে এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী শাহজাহান, ইউসুফ, মনির, হামিদ, রিয়াদুল্লাহ, শহীদ, জিয়াবুল ও শহিদ আমার বাড়ীর দরজায় তালা লাগিয়ে আমার বসতঘরে আগুন দিয়ে আমার পরিবারের সকল সদস্যকে পুঁড়িয়ে মারার চেষ্টা করে। এ সময় বসতঘরে আগুন জ্বলতে জ্বলতে টিন ও গাছ পোড়ার শব্দ শুনে বাড়ীর ভেতরে থাকা মেয়ে লিমা, ছেলে ইমন ও ছেলে রায়হানের স্ত্রী কাউছারের হঠাৎ ঘুম ভেঙ্গে যায় এবং কোন প্রকারে জানালা ভেঙ্গে বাড়ী থেকে বের হয়ে সন্ত্রাসী শাহজাহান ও তার সহযোগীদের বাড়ীর সামনে দেখে শোর-চিৎকার করতে থাকে। এ সময় ঘটনার বিষয়ে কাউকে জানালে আমার পরিবারের সদস্যদেরকে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে চলে যায়। ততক্ষণে আগুনে পুড়ে নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার, আসবাবপত্র ও কাপড় -চোপড়সহ ৫ লক্ষ টাকার ক্ষয়-ক্ষতি হয়। গত ৩০ নভেম্বর শনিবার বিকেল ৪টায় লোহাগাড়া প্রেসক্লাবে উপস্থিত হয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে উপজেলার পুটিবিলা জিএম সিকদার পাড়ার মৃত আমির হোসেনের স্ত্রী অসহায় নির্যাতিত মনোয়ারা বেগম লিখিত বক্তব্যে এসব অভিযোগ করেন। তিনি আরো জানান, দুস্কৃতিকারীদের অব্যাহত হুমকী-ধমকীতে পরিবার-পরিজন নিয়ে বর্তমানে চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভূগছেন। প্রতিপক্ষরা এতই প্রভাবশালী যে, বার বার থানায় গেলেও পুলিশ এ অসহায় ও নির্যাতিত মহিলার মামলা রুজু করতে রাজি হয়নি। তাই তারা জেলা জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে মামলা করেছেন। এ সাংবাদিক সম্মেলনে বিধবা মনোয়ারা বেগমের সাথে উপস্থিত ছিলেন তার নিকট আত্মীয় আবদুল গফুর (৬০), পুত্রবধু কাউছার আক্তার (১৮), কন্যা লিমা আক্তার (১৪) ও শিশুপুত্র ইমন।