দুই ‘বহুরূপী’ প্রতারক আটক

33

 

খাগড়াছড়িতে বহুরূপী দুই প্রতারককে আটক করেছে জনতা। আটক দুই জনের মধ্যে মনোয়ার হোসেন (৩৫) নামের প্রতারক নিজেকে কখনো গোয়েন্দা অফিসার, আবার কখনো ম্যাজিস্ট্রেট, ভূমি অফিসার, ডিসি অফিসের চাকরিজীবীসহ অসংখ্য পরিচয় দিতেন। আটক মনোয়ারের বাড়ি লক্ষীপুর জেলা এবং তার সহযোগী কাজলি মহাজনের বাড়ি খাগড়াছড়ি সদরের আনন্দনগর এলাকায়।
প্রতারক এ যুবক সাধারণ মানুষকে নানা কৌশলের মাধ্যমে চাকরী দেওয়ার নামে খাগড়াছড়ির বিভিন্ন এলাকা থেকে মানুষের কাছ থেকে প্রায় ১১ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নেন বলে জানান স্থানীয়রা। অবশেষে তাকে ভুক্তভোগী ও স্থানীয় জনতা সোমবার দুপুরে আটক করে খাগড়াছড়ি পৌরসভায় নিয়ে আসেন।
এ সময় প্রতারক মনোয়ারের ভাষ্যমতে তার কাজে সহযোগিতা ও অর্থ ভাগিদার কাজলি মহাজনকে আটকে করে জনতা প্রথমে খাগড়াছড়ি পৌরসভায় নিয়ে যান। পরে তাদের পুলিশে সোপর্দ করা হয়।
বিষয়টি নিশ্চিত করে খাগড়াছড়ি পৌর মেয়র রফিকুল আলম বলেন, প্রতারকরা বিভিন্ন পন্থা অবলম্বন করে খাগড়াছড়ি থেকে মোটা অংকের অর্থ হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি পুলিশকে জানানো হয়েছে। প্রশাসনিকভাবে পুলিশ ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।
খাগড়াছড়ি সদর থানার ওসি মোহাম্মদ রশিদ দুই প্রতারককে আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করে বিষয়টি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে জানান।
এ বিষয়ে অভিযোগকারী নুর বলেন, প্রতারক চাকরি দেওয়ার নামে নানাভাবে ছল-চাতুরি করে মানুষের কাছ থেকে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। এ কাজে তাকে সহযোগিতা করেছে আটক কাজলি মহাজন। তাদের শাস্তির দাবি করছি।