তারেক জিয়াসহ সব পলাতক আসামির রায় কার্যকরের দাবি

18

পূর্বদেশ অনলাইন
২০০৪ সালের একুশে আগস্ট বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনাকে হত্যার উদ্দেশ্যে খালেদা-তারেক-নিজামীর প্রত্যক্ষ মদদে সংঘটিত গ্রেনেড হামলায় নিহতদের স্মরণ ও পলাতক খুনিদের দেশে ফিরিয়ে এনে দ্রুত রায় কার্যকরের দাবিতে মানববন্ধন করেছে চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রলীগ। রোববার (২১ আগস্ট) সকাল ১১টায় কলেজের বঙ্গবন্ধু ম্যুরালের পাদদেশে চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি মাহমুদুল করিমের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক সুভাষ মল্লিক সবুজের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত কর্মসূচিতে একাত্মতা জানিয়ে বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম কলেজের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের প্রধান প্রফেসর রেজাউল করিম, রসায়ন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. অজয় দত্ত। বক্তারা বলেন, দেশ স্বাধীন হওয়ার পর থেকে বারবার বঙ্গবন্ধু পরিবারের ওপর আঘাত এসেছে। পঁচাত্তরের পনেরোই আগস্ট বঙ্গবন্ধুকে সপরিবারে হত্যা করেছে পরাজিত শক্তি পাকিস্তানিদের দোসররা। একুশে আগস্ট গ্রেনেড হামলার মাধ্যমে শেখ হাসিনাকে হত্যার মধ্য দিয়ে বঙ্গবন্ধু পরিবারকে ইতিহাস থেকে নিশ্চিহ্ন করতে চেয়েছিল খালেদা-তারেক-নিজামী গং। ২০১৮ সালে রায় ঘোষণা হলেও মূল কুশীলব তারেক জিয়াসহ অনেক আসামি এখনো পলাতক। তাই দ্রুত সময়ের মধ্যে এদের দেশে ফিরিয়ে এনে রায় কার্যকর করতে হবে। বক্তব্য দেন কলেজ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মনির ইসলাম, ইকবাল কায়সার, সরফুল ইসলাম মাহি, জাহিদ হাসান সাইমুন, জিয়াউদ্দীন আরমান, মনির রিহান, হাসমত খান আতিফ, অর্ণব দেব, জামশেদ উদ্দীন, রাশেদ রহমান, আজিজুল হাকিম মাসুক, মো:আনসার। উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রলীগ নেতা আমির সোহেল, সোহেল রানা, জেড মনির, মামুনর রশিদ নিরব, মামুন সিকদার, সৈয়দ মোস্তফা সাদিক রিজভী, সাফায়েত হোসেন রাজু, শোয়াইবুল ইসলাম, ওয়াহিদুর রহমান সুজন, আরাফাতুল ইসলাম জয়, আব্দুল মালেক রুমি, ইমরান, আল বেরুনি, সিরাজুল ইসলাম, মোস্তফা আমান, ওয়াহিদুর রহমান, তৌহিদুল করিম ঈমন, ইমতিয়াজ বাবর, রিফাত রহমান, বিশাল হাজারী, গোবিন্দ দত্ত, মো. তারেক রহমান, মো. হোসাইন, শেখ ফাহিম, ইমতিয়াজ নাহিন, জনি, রাজ্জাক, নাফিস, শহীদ, মিজান, ইরফানুল আলম, পাভেল ইসলাম, ইফতি সিকদার, আমিনুল ইসলাম রাশেদ, ইমরুল কায়েস, আব্দুস সালাম আরিয়ান, আরিফুর রহমান আয়াত, প্রলয় চৌধুরী, আরফাতুর রহমান সম্রাট, জাবেদ ইকবাল, আজিম, সালাহ উদ্দীন, শিহাব চৌধুরী, রিয়াজ, প্রান্ত মজুমদার, জাহেদ অভি প্রমুখ।