জয়ের তিনশ পেরোনোর স্বস্তি

10

স্পোর্টস ডেস্ক

উইকেট মাঝেমধ্যে টার্ন করছিল, কিন্তু খেলার জন্য খুব বেশি কঠিন ছিল না। শেষ অবধি ব্যাটারদের আত্মাহুতি দেওয়ায় স্বাগতিকদের রান তিনশ ছাড়াতেই কষ্ট হয়েছে বেশ। শেষদিনে অলআউটও হয়নি বাংলাদেশ। ৯ উইকেট হারিয়ে তারা করেছে ৩১০ রান। ১১ ব্যাটারের মধ্যে দশ ব্যাটারই দুই অঙ্ক ছাড়িয়েছেন, কিন্তু মাহমুদুল হাসান জয় ছাড়া কেউই পঞ্চাশ ছুঁতে পারেননি। তবে এই রান যথেষ্টই মনে হচ্ছে দলের প্রতিনিধি হয়ে দিনের শেষে আসা জয়ের।
তিনি বলেন, ‘আমাদের স্কোরবোর্ডে ৩০০ রান আছে। এখনও একটা ভালো পজিশনে আছি। আমাদের তো পরিকল্পনা ছিল ৩৫০-৩৮০ রান হলে খুব ভালো হতো। কিন্তু দূর্ভাগ্য যে হয়নি। আমরা এখন চেষ্টা করব , ওই রানের মধ্যে যে আমাদের কোয়ালিটি স্পিনার আছে ভালো জায়গায় যদি বোলিং করতে পারে ইনশাল্লাহ, ওদের কম রানে অলআউট করা সম্ভব।’ ‘আসলে এখন উইকেটের ওপর ডিপেন্ড করে। এখানে উইকেট একটু ¯েøা আছে। তো আমরা স্পিনারদের উপর বেশি প্রায়োরিটি দিচ্ছি। স্পিনাররা যদি ভালো করে আমরা ভালো করব।’ বাংলাদেশ রান করেছে, তবে সমান তালে পাল্লা দিয়ে উইকেট নিয়েছে নিউজিল্যান্ড। বেশ লম্বা ব্যাটিং অর্ডার নিয়ে খেলতে নেমেছে তারা। এ কারণে প্রথম ইনিংসে লিড নেওয়ার আশা করছেন নিউজিল্যান্ডের গ্লেন ফিলিপস। তার আশা, প্রথম ইনিংসে দুই দলের জন্য পিচ সমান আচরণ করবে। ফিলিপস বলেন, ‘পিচে টার্ন আছে ভালো। প্রথম দিনের জন্য যেটা খুব ভালো। শরিফুল আরেক প্রান্তে পা দিয়ে ভাঙবে। দ্বিতীয় ইনিংসে দুই দলের জন্যই নতুন কিছু থাকবে। এটা দেখা খুবই মজার হবে খেলাটা কীভাবে এগোয়।’ ‘আমাদের লম্বা একটা ব্যাটিং অর্ডার আছে। তাই আশা করি পিচটা ঠিকঠাক থাকবে আর প্রথম ইনিংস দু দলের জন্যই সমান-সমান হবে। এতে দারুণ একটা শেষ দুই বা একদিনের মঞ্চ তৈরি হবে।’