চন্দনাইশে বেড়েছে মুরগির দাম, কমেছে সবজির

12

চন্দনাইশে ১৫ দিনের ব্যবধানে দাম বেড়েছে ব্রয়লার, সোনালি মুরগি। তবে দাম কমেছে আলুসহ বিভিন্ন জাতের সবজির। অপরদিকে অপরিবর্তিত রয়েছে পেঁয়াজ, গরু, মহিষ ও খাসির মাংস। গত ২১ ফেব্রæয়ারি উপজেলার বিভিন্ন বাজার ঘুরে দেখা যায়, দাম বেড়েছে বয়লার, সোনালি মুরগি। তবে দাম কমেছে আলুসহ বিভিন্ন জাতের সবজির। অপরদিকে অপরিবর্তিত রয়েছে পেঁয়াজ, গরু, মহিষ ও খাসির মাংস। বিভিন্ন বাজারে ১৫ দিনের ব্যবধানে প্রতি কেজি মুলা ও শালগম বিক্রি হচ্ছে ১০ টাকা, গাজর ২০ টাকা, শিম ৩০ টাকা, বেগুন ২০ টাকা, তিত করলা ৩০ টাকা, টমেটো ২০ টাকা, বরবটি ৪০ টাকায়। প্রতিটি লাউ আকারভেদে বর্তমানে বিক্রি হচ্ছে ২০ থেকে ৩০ টাকা, ফুলকপি ১৫ টাকা, বাঁধাকপি ১০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। আলু বিক্রি হচ্ছে ১৫ টাকা কেজি, সিসিংগা ৩০টাকা, পিঁয়াজ ২৫ টাকা প্রতি কেজি। কাঁচা মরিচ বিক্রি হচ্ছে ৫০ টাকায় কেজি। মুরগি প্রতি কেজিতে ৫০ টাকা দাম বেড়ে বিক্রি হচ্ছে সোনালি মুরগি (কক) ২৬০ টাকা ও ব্রয়লার মুরগি ১৫৫ টাকা প্রতি কেজি। এসব বাজারে অপরিবর্তিত রয়েছে গরু, মহিষ ও খাসির মাংস। চন্দনাইশ থানা বাজারের সবজি বিক্রেতা জালাল উদ্দিন বলেছেন, একদিনের ব্যবধানে বাজারে সবজির দাম অনেক ওঠানামা করে। অনেক সময় বাজারে ক্রেতাই থাকেনা, তখন কম দামে সবজি বিক্রি করতে হয়। বাজারে কোন কিছু দাম বেড়ে গেলে সবাই তখন দাম বাড়া নিয়ে কথা বলে। দাম কম থাকলে তা নিয়ে কেউ কিছু বলেনা। আমাদের এখন বেশির ভাগ সময় সবজি কম দামে বিক্রি করতে হয় পচন থেকে বাঁচার জন্য।