গণতান্ত্রিক ছাত্র জোটের বিক্ষোভ মিছিল-সমাবেশ

34

পাহাড়ের প্রথাগত ভূমি অধিকার নিশ্চিত কর, লামায় রাবার ইন্ডাস্ট্রিজ কর্তৃক ¤্রাে জাতিগোষ্ঠীর বাড়িঘরে অগ্নিসংযোগ-ভাঙচুরে জড়িতদের গ্রেফতার করা, ফেলানীসহ সীমান্তে সকল হত্যাকাÐের বিচার ও কেন্দ্র ঘোষিত ১৩ দফা দাবিতে গণতান্ত্রিক ছাত্র জোট, চট্টগ্রামের বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিল গতকাল বিকেল ৪টায় নগরীর আন্দরকিল্লা মোড়ে অনুষ্ঠিত হয়।
সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট চট্টগ্রাম নগর শাখার সহ-সভাপতি রিপা মজুমদার। বক্তব্য দেন গণতান্ত্রিক ছাত্র কাউন্সিল জেলা আহŸায়ক এ্যানি চৌধুরী, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট নগর শাখার সভাপতি মিরাজ উদ্দিন, বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ চট্টগ্রাম মহানগরের সাধারণ সম্পাদক অমিত চাকমা, বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রী জেলা আহŸায়ক আবিদ ইসলাম, বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন জেলা আহŸায়ক জুয়েল মজুমদার, বাংলাদেশ ছাত্র ফেডারেশন জেলা আহŸায়ক সাইফুর রুদ্র এবং সভা সঞ্চালনা করেন সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট নগর শাখার সাধারণ সম্পাদক প্রীতম বড়ুয়া।
সভায় বক্তারা বলেন, পাহাড়ি জনগোষ্ঠীর ওপর চলমান নির্যাতনের নতুন মাত্রা যোগ করল লামা রাবার ইন্ডাস্ট্রি। ১৯৯৬ সালের চুক্তির ভিত্তিতে বান্দরবানের লামা উপজেলায় সরই ইউনিয়নের বন্দোবস্ত প্রাপ্ত ১৬০০ একর জায়গায় ৫ বছরের মধ্যে বাগান করার কথা থাকলেও একযুগ পর বাগান করার নামে ৩০০০ একর ভূমি ইতিমধ্যে দখল করে স্থানীয় ¤্রাে এবং ত্রিপুরা জাতির বসবাস এবং চাষের ভূমি আগুনে পুড়িয়ে উচ্ছেদের লক্ষ্যে দখলের জন্য ক্রমাগত নিপীড়ন চালাচ্ছে। বিক্ষোভ সমাবেশ শেষে একটি মিছিল আন্দরকিল্লা মোড় থেকে প্রেস ক্লাব এসে শেষ হয়। বিজ্ঞপ্তি