একাডেমিয়া-ইন্ডাস্ট্রি ইন্টারেকশন সভা

2

দি চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি এবং চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের লোক প্রশাসন বিভাগের যৌথ উদ্যোগে একাডেমিয়া-ইন্ডাষ্ট্রি ইন্টারেকশন মিটিং ২৭ জুন সকালে ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারস্থ বঙ্গবন্ধু কনফারেন্স হলে অনুষ্ঠিত হয়। চিটাগাং চেম্বার পরিচালক অঞ্জন শেখর দাশ’র সভাপতিত্বে পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার ইফতেখার হোসেন, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের জনপ্রশাসন বিভাগের সাবেক চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. আমীর মোহাম্মদ নসরুল্লাহ ও এসোসিয়েট প্রফেসর মোহাম্মদ রেজাউল করিম, চেম্বারের সাব-কমিটি অন রিসার্চ ডেভেলাপমেন্ট এন্ড ট্রেনিং’র জয়েন্ট কনভেনর ইঞ্জিনিয়ার এস. এম. শহিদুল আলম ও সদস্যবৃন্দ মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম, ইসতিয়াক দোজা ও মো. আবু হোরায়রা বক্তব্য রাখেন। এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে সাব-কমিটির সদস্য আকিব কামাল, চেম্বারের সেক্রেটারী ইনচার্জ প্রকৌশলী মোহাম্মদ ফারুক ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের লোক প্রশাসন বিভাগের বিপুল সংখ্যক শিক্ষার্থী উপস্থিত ছিলেন। অনট্রপ্রিনিয়ারশীপ ডেভেলাপমেন্ট ইন বাংলাদেশ শীর্ষক মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন চেম্বারের উপ-সচিব মোহাম্মদ আলী আজগর। চেম্বার পরিচালক অঞ্জন শেখর দাশ উদ্যোক্তা হিসেবে নিজের অভিজ্ঞতা বর্ণনা করে বলেন-একজন উদ্যোক্তাকে প্রথমেই সিদ্ধান্ত নিতে হবে এবং শিখতে হবে। চিটাগাং চেম্বারের কর্মকান্ড সম্পর্কে তিনি বলেন, বেসরকারি খাতের প্রতিনিধি হিসেবে এই সংগঠন সব সময় ব্যবসায়ীদের দাবীসমূহ সরকারের কাছে উত্থাপন করে থাকে। চেম্বার পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার ইফতেখার হোসেন একাডেমিয়া-ইন্ডাষ্ট্রি ইন্টারেকশন খুবই প্রয়োজনীয় উল্লেখ করে শিক্ষার্থীদের মাইন্ডসেট পরিবর্তনের উপর গুরুত্বারোপ করেন। চেম্বারের পরিচালকমন্ডলীর পাশাপাশি বিভিন্ন সেক্টরের প্রতিনিধিদের সমন্বয়ে গঠিত ২৩টি সাব-কমিটি চেম্বারের সেক্টরভিত্তিক কার্যক্রমের ক্ষেত্রে সহায়তা করে থাকে। তন্মধ্যে রিসার্চ ডেভেলাপমেন্ট এন্ড ট্রেনিং বিষয়ক সাব-কমিটি এই আয়োজনের সাথে সম্পৃক্ত। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ড. আমীর মোহাম্মদ নসরুল্লাহ বলেন-বিশ্ববিদ্যালয়ে একাডেমিক বিষয় পড়ানো হলেও উদ্যোক্তাদের সাথে সরাসরি কথার বলার মাধ্যমে তাঁদের অভিজ্ঞতা ও দিকনির্দেশনা যাতে শিক্ষার্থীদেরকে অনুপ্রাণিত করে সেই লক্ষ্যে এই মতবিনিময়ের আয়োজন।