১১ দিন পর সূচক কমল পুঁজিবাজারে

খবর বার্তা সংস্থার

23

মূল্যসূচক কমেছে বাংলাদেশের পুঁজিবাজারে। টানা ১১ কার‌্যদিবস বাড়ার পর সূচক কমল বাজারে। সপ্তাহের দ্বিতীয় দিন সোমবার প্রধান বাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক ডিএসইএক্স প্রায় ৩২ পয়েন্ট কমেছে। লেনদেন হয়েছে ৯৬৫ কোটি ৫৩ লাখ টাকা। বাজার বিশ্লেষকরা বলছেন, বিনিয়োগকারীরা মুনাফা তুলে নেওয়ায় বিক্রির চাপে সূচক কমেছে।
ডিএসইর সাবেক সভাপতি রকিবুর রহমান বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “টানা ১১ দিন ধরে পুঁজিবাজরে সূচক বাড়ছে, অনেক শেয়ারর দাম বেড়ে গেছে, অনেক বিনিয়োগকারী মুনাফায় ছিলেন, তারা শেয়ার বিক্রি করেছেন। বিক্রির চাপে শেয়ারের দাম কমেছে; কমেছে সূচক।” সোমবার ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নিয়েছে ৩৪৫টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১১৬টির, কমেছে ১৯৯টির। আর অপরিবর্তিত রয়েছে ৩০টি কোম্পানির শেয়ার দর।
রকিবুর রহমান বলেন, ২০১০ সালের ধসের পর যে বিনিয়োগকারীরা বাজার থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছিলেন তারা আবার ফিরছেন। ৩০ ডিসেম্বরের জাতীয় নির্বাচনের পর বাজারে আস্থা ফিরতে শুরু করেছে। বিনিয়োগকারীরা বাজারমুখী হয়েছেন। সে কারণেই চাঙ্গাভাব দেখা যাচ্ছে বাজারে। এ পরিস্থিতিতে যতো দ্রুত সম্ভব ভালো ভালো শেয়ার বাজারে আনার পরামর্শ দিয়েছেন তারা। জাতীয় নির্বাচনের কয়েক দিন আগে থেকেই বাজারে অল্প অল্প সূচক বাড়তে শুরু করে। ভোটের পর সূচক বাড়ছে বেশ গতিতে। ভোটের আগে ১৭ ডিসেম্বর থেকে পুঁজিবাজারে সূচক বাড়তে শুরু করে। ঐ দিন ডিএসইতে ডিএসইএক্স ছিল ৫ হাজার ২১৮ পয়েন্ট। এই ১১ দিনে ডিএসইএক্স ৪৬৯ পয়েন্ট ৫ হাজার ৬৮৭ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছিল।
সোমবার ডিএসইএক্স ৩১ দশমিক ৮২ পয়েন্ট কমে ৫ হাজার ৬৬৫ পয়েন্টে অবস্থান করছে। ডিএসইএস বা শরীয়াহ সূচক ৫ দশমিক ৮০ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে এক হাজার ২৮৯ পয়েন্টে। আর ডিএস৩০ সূচক ১০ দশমিক ২০ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে এক হাজার ৯৬৩ পয়েন্টে। সিএসইর সার্বিক সূচক সিএএসপিআই কমেছে ১৫০ পয়েন্ট। লেনদেনে হয়েছে ৪১ কোটি ৭৮ লাখ; যা রোববারের চেয়ে ১১ কোটি ২৩ লাখ টাকা কম।-