হেলিকপ্টারে চড়ে শুটিংস্থলে পূর্ণিমা

8

মাঝারি বিরতির পর আবারও শুরু হয়েছে চিত্রনায়িকা পূর্ণিমার ‘গাঙচিল’ ছবির শুটিং। ১৭ নভেম্বর থেকে দ্বিতীয় ধাপের এ শুটিং চলছে নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার বসুরহাট ইউনিয়নে। সেখানে যাওয়ার জন্য বুধবার সকালে রওনা করেন পূর্ণিমা। কিন্তু সড়কপথে পরিবহন শ্রমিকদের অবরোধ থাকায় বাধ্য হয়ে নায়িকা হেলিকপ্টারে করে শুটিংস্থলে পৌঁছান। এ সম্পর্কে পূর্ণিমা বলেন, ‘প্রস্তুতি নিয়েছিলাম বুধবার ভোরবেলা সড়কপথে রওনা হবো। কারণ সকাল থেকে আমার অংশের শুটিং শুরু হবে। কিন্তু বের হওয়ার পর জানতে পারলাম, শ্রমিকেরা নতুন সড়ক পরিবহন আইন সংস্কারের দাবিতে রাস্তাঘাট অবরোধ করে রেখেছেন। এ কারণে জরুরিভাবে হেলিকপ্টারে করে নোয়াখালী পৌঁছেছি।’
‘গাঙচিল’ ছবিটি পরিচালনা করছেন নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুল। তিনি বলেন, ‘সড়কপথে অবরোধের কারণে জরুরিভিত্তিতে হেলিকপ্টারে করে নায়িকা পূর্ণিমাকে আনার ব্যবস্থা করা হয়। কারণ পুরো দিনই তার অংশের শুটিং ছিল। বুধবার সকাল থেকে আমরা পূর্ণিমার অপেক্ষায় বসে ছিলাম।’ দ্বিতীয় ধাপে টানা ১৫দিন শুটিং চলবে বলেও তিনি জানান। এই ছবিটি নির্মিত হচ্ছে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের লেখা ‘গাঙচিল’ উপন্যাস অবলম্বনে।
এর কাহিনিতে রয়েছে নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার বসুরহাট ইউনিয়নের গাঙচিল চরের মানুষের জীবনের নানা গল্প। এখানে পূর্ণিমা অভিনয় করছেন এনজিওকর্মী মোহনার চরিত্রে। তার বিপরীতে নায়ক ফেরদৌস। তাকে দেখা যাবে সাংবাদিক সাগর চরিত্রে। ‘গাঙচিল’-এর বিভিন্ন চরিত্রে আরও অভিনয় করছেন অভিনেতা ও সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জমান নূর, তারিক আনাম খান, আনিসুর রহমান মিলন ও জয়রাজসহ অনেকে। এটি ছাড়াও পূর্ণিমার ‘জ্যাম’ নামের একটি ছবির শুটিংও চলমান। এর পরিচালকও নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুল। এছাড়া এই ছবিতেও পূর্ণিমার নায়ক ইন্ডাস্ট্রিতে তার ঘনিষ্ঠ বন্ধু ফেরদৌস।