স্বর্ণবার জব্দের মামলায় একজনের যাবজ্জীবন

নিজস্ব প্রতিবেদক

13

ছয় বছর আগে নগরীর শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ২০ কেজি ওজনের একশ’ ৪৬ টি স্বর্ণের বারসহ শুল্ক গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের হাতে গ্রেপ্তার হয়েছিলেন ওমানফেরত মীর শাহনেওয়াজ মোরশেদ। ওই ঘটনায় পতেঙ্গা থানায় দায়ের হওয়া মামলার রায় দিয়েছেন বিচারক। গতকাল সোমবার দেয়া রায়ে শাহনেওয়াজকে যাবজ্জীবন কারাদÐ ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। জরিমানা অনাদায়ে তাকে আরও ছয় মাস কারাভোগ করতে হবে।
স্বর্ণ চালান জব্দের মামলার বিচার শেষে পঞ্চম অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ জান্নাতুল ফেরদাউস চৌধুরী এই রায় ঘোষণা করেন। দÐিত শাহনেওয়াজ এসময় আদালতে আসামির কাঠগড়ায় হাজির ছিলেন। পরে তাকে কেন্দ্রীয় কারাগারে নিয়ে যাওয়া হেেছ। তিনি বোয়ালখালী উপজেলার খরনদ্বীপের মীর মোহাম্মদ মুছার পুত্র। দুবাইয়ে গাড়ি চালানোর মধ্য দিয়ে প্রবাস জীবন শুরু করা শাহনেওয়াজ এক পর্যায়ে আন্তর্জাতিক চোরাচালান চক্রের সঙ্গে জড়িয়ে পড়েন।
আদালতে নিযুক্ত সরকারি কৌঁসুলি উত্তম কুমার দত্ত জানান, ২০১৩ সালের ২৩ জুলাই শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ওমানের মাসকাট বিমানবন্দর থেকে আসা যাত্রী শাহনেওয়াজের সঙ্গে থাকা ব্যাগ তল্লাশি করে একশ’ ৪৬ টি স্বর্ণের বার জব্দ করে শুল্ক গোয়েন্দা কর্তৃপক্ষ। এই ঘটনায় পতেঙ্গা থানায় বিশেষ ক্ষমতা আইনে করা মামলার তদন্ত শেষে একই বছরের ১০ নভেম্বর আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়। অভিযোগপত্রে উল্লেখিত আটজন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ করেন আদালত। এরপর রায় ঘোষণা করেন।