স্থপতি তসলিম উদ্দিন চৌধুরীর স্মরণসভা

12

চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও বীর মুক্তিযোদ্ধা নঈম উদ্দিন চৌধুরী বলেছেন, তসলিম উদ্দিন চৌধুরী গণমানুষের মনন ও মানসিকতার পরিবর্তন, সভ্য ও সুন্দর সমাজ গঠনে আজীবন কাজ করে গেছেন। সামাজিক অবক্ষয় ও মূল্যাবোধের চর্চা ও বিস্তার ঘটানোর ক্ষেত্রে নিরলস প্রচেষ্টা চালিয়ে গেছেন। গত ১৯ নভেম্বর বিকেলে নগরীর জামালখানস্থ এক্সক্লুসিভ কনভেনশন হলে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট চট্টগ্রাম জেলা আয়োজিত দৈনিক পূর্বকোণের সম্পাদক প্রয়াত তসলিম উদ্দিন চৌধুরীর স্মরণসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। তিনি আরো বলেন, তসলিম উদ্দিন চৌধুরী একজন সৃষ্টিশীল মানুষ ছিলেন। জ্ঞানী ও গুণীমানুষ মৃত্যুর পরও বেঁচে থাকেন। সেই সঙ্গে দৈনিক পূর্বকোণ চট্টগ্রাম থেকে প্রকাশিত হলেও প্রচার সংখ্যায় জাতীয় পত্রিকার মর্যাদায় উন্নীত করেছেন তিনি। মুখ্য আলোচকের বক্তব্যে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা এম রেজাউল করিম চৌধুরী বলেছেন, তসলিম উদ্দিন চৌধুরীর বিদায়ে আজ আমরা মুহ্যমান, ভাষাহারা। তিনি আরো বলেন, তাঁর অপূরণীয় শূন্যতার হাহাকারে আর্তুহাওয়া আমাদের চারিদিকে বয়ে চলেছে। স্থপতি তসলিম উদ্দিন চৌধুরী ছিলেন পূর্বকোণ পত্রিকার প্রধান স্তম্ভ। আশা ও ভরসার আঁধার। তিনি এই পত্রিকাকে নবজন্ম দিয়েছিলেন। বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট চট্টগ্রাম জেলার সাধারণ সম্পাদক খোরশেদ আলমের সভাপতিত্বে সাংস্কৃতিক কর্মী সজল দাশ’র সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত তসলিম উদ্দিন চৌধুরীর স্মরণসভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন নগর যুবলীগের সদস্য সুমন দেবনাথ, সাবেক ছাত্রনেতা এম. এ মান্নান শিমুল, যুব সংগঠক এডভোকেট সৈয়দ খোরশেদ আলম হেলাল, চট্টগ্রাম আইন কলেজের সাবেক ভি.পি টিপুশীল জয়দেব, দক্ষিণ জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সদস্য তিষণ সেন গুপ্ত, সংস্কৃতিকর্মী শারমীন আক্তার ঝুলি, শাহেলা আক্তার শিলা, সুখেন্দ্র বিকাশ ধর, আবদুল রাজ্জাক, মো: আলী হোসেন, আবদুস সবুর, রতন ঘোষ, রতন ভট্টাচার্য, মিজানুর রহমান, আবদুল হক, আবদুর রহিম, আরিফুর রহমান, মাসুদ আলী প্রমুখ। বিজ্ঞপ্তি