সাতকানিয়ায় ইয়াবাসহ গ্রেপ্তার ৩ গাড়ি জব্দ

সাতকানিয়া প্রতিনিধি

41

দোহাজারী হাইওয়ে পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার সড়কের সাতকানিয়া অংশে পৃথক অভিযান চালিয়ে ৫১ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করেছে। এ সময় ইয়াবা পাচারের অভিযোগে তিন জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। জব্দ করা হয় ইয়াবা পাচারে ব্যবহৃত একটি যাত্রীবাহী বাস ও একটি পিকআপ ভ্যান।
গত ২৭ ফেব্রুয়ারি রাতে সাতকানিয়ার কালিয়াইশ ইউনিয়নের কাটগড় বিওসির মোড় এলাকা থেকে এসব ইয়াবা উদ্ধার ও পাচারকারীদের গ্রেপ্তার করা হয়।
এ ঘটনায় ধৃতরা হলো-ফেনী সদর উপজেলার বাতানিয়া ইউনিয়নের ২ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা মৃত নুর মিয়ার পুত্র মোহাম্মদ সেলিম উদ্দিন (৪২), কক্সবাজার জেলার উখিয়া উপজেলার রাজাপালং ইউনিয়নের হিজলিয়া এলাকার মৃত সামশুল আলমের পুত্র মোহাম্মদ মফিজ মিয়া (৪৫) এবং কুমিল্লা জেলার নাঙ্গলকোট উপজেলার মোকরা গ্রামের নাদু
মিয়ার পুত্র রবিউল আলম প্রকাশ হাসান (৩৮)। এদের মধ্যে সেলিম ও মফিজ মিয়া পিকআপ ভ্যানের চালক-হেলপার আর রবিউল আলম প্রকাশ হাসান ইউনিক পরিবহনের সুপারভাইজার।
দোহাজারী হাইওয়ে পুলিশ সূত্র জানায়, হাইওয়ে থানার সামনে কক্সবাজার থেকে চট্টগ্রাম অভিমুখে আসা একটি পিকআপ ভ্যান (গাজীপুর-ম ০৫-০০০১) পৌঁছলে সেটিতে তল্লাসী চালিয়ে চালক সেলিম ও হেলপার মফিজ মফিজ মিয়ার দেখানো মতে তেলের ট্যাঙ্কের বর্ধিত অংশে বিশেষ কৌশলে লুকিয়ে রাখা স্থান থেকে ৩০ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়।
অপরদিকে একইদিন একই স্থানে যাত্রীবাহী ইউনিক পরিবহনের একটি বাস (চট্টমেট্রো-ব-১১-১১০৮৩৩) তল্লাশির সময় গাড়ির সুপারভাইজার কুমিল্লা জেলার নাঙ্গলকোট উপজেলার মোকরা গ্রামের নাদু মিয়ার পুত্র রবিউল আলম প্রকাশ হাসান (৩৮) পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে তাকে আটক করা হয়। পরে গাড়ির ভেতর তার দেখানো স্থান থেকে ২১ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।
হাইওয়ে থানার ওসি মিজানুর রহমান বলেন, ধৃতদের সাতকানিয়া থানায় সোপর্দ করা হয়েছে।
সাতকানিয়া থানার ওসি মো. রফিকুল হোসেন বলেন, আসামিদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।