শেষ মিনিটে ম্যানইউর রোমাঞ্চকর জয়

13

শুরুর ১০ মিনিটের মধ্যে দুইবার বল আছড়ে পড়ল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের জালে। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে তাদের চতুর্থ হার দেখতে পাচ্ছিল ওল্ড ট্র্যাফোর্ডের দর্শকরা। কিন্তু নিউক্যাসেল ইউনাইটেডের বিপক্ষে এ লড়াইয়ের উত্তেজনা রাখা ছিল দ্বিতীয়ার্ধের জন্য। দুই গোলে পিছিয়ে পড়া ম্যানইউ শেষ মিনিটে গোলে রোমাঞ্চকর জয় পেয়েছে। চার ম্যাচ পর তারা জয় পেয়েছে ৩-২ গোলে।
ম্যানইউকে জোড়া ধাক্কা খেতে হয় ১০ মিনিটে। ইয়োশিনোরি মুতো ম্যানইউর এলোমেলো রক্ষণভাগের মধ্যে বল নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নিচু শটে ম্যানইউ গোলরক্ষকের পায়ের নিচ দিয়ে বল পাঠান জালে। এই গোল হজমের পর ১৯ মিনিটে ডিফেন্ডার এরিক বেইলিকে তুলে নিয়ে হুয়ান মাতাকে মাঠে নামান হোসে মরিনহো। রক্ষণের দুর্দশা এখানেই শেষ নয়। বেইলি উঠে যাওয়ায় রক্ষণে নেমে যাওয়া মিডফিল্ডার স্কট ম্যাকটোমিনেকে তুলে নিয়ে বিরতির পর মারোনে ফেলাইনিকে বদলি নামান কোচ।
বিরতির পর বদলে যায় ম্যাচের অবস্থা, বিশেষ করে ৬৭ মিনিটে মার্কাস র‌্যাশফোর্ডকে উঠিয়ে অ্যালেক্সিস সানচেসকে নামিয়ে বদলি কোটা পূরণ করার পর। ৩ মিনিট পর ফ্রি কিক থেকে গোল শোধ দেন মাতা।
তারপর পল পগবা, ক্রিস স্মলিং ও ফেলাইনি সুযোগ নষ্ট করলে হতাশ হতে হয় স্বাগতিকদের। পগবার অ্যাসিস্টে ৭৬ মিনিটে অ্যান্থনি মার্শাল সমতাসূচক গোল করে স্বস্তি ফেরান। তবে ম্যাচে নায়ক হয়ে যান সানচেস। ৯০তম মিনিটে গোল করেন চিলির স্ট্রাইকার। ৩১ মার্চের পর প্রথম গোল করে দলকে এনে দেন তিনি নাটকীয় জয়।