লাউ ক্ষেতে স্বাবলম্বী চন্দনাইশের ইব্রাহিম

চন্দনাইশ প্রতিনিধি

10

চন্দনাইশ উপজেলার হাশিমপুর পাহাড়ী এলাকায় লাউ চাষ করে সফলতা পেয়ে লাভবান হয়েছেন কৃষক ইব্রাহিম। তার মত অনেকেই কৃষি জমিতে লাউ চাষ করে পরিবারের স্বচ্ছলতা ফিরাতে সক্ষম হয়েছে। সরেজমিনে পরিদর্শনে দেখা যায়, হাশিমপুর নাছির মো. পাড়ার কৃষক ইব্রাহিম প্রতি বছরের ন্যায় এ বছর ৪০ শতক জমিতে লাউ চাষ করেছেন। তিনি ৬ হাজার টাকা খাজনা দিয়ে জমি নিয়ে লাউ চাষ করে। ২ মাস আগে লাউ গাছ রোপন করার পর এখন লাউ গাছ ফল দিতে শুরু করেছে। তিনি জানান, প্রতিটি লাউ প্রকারভেদে ২০ থেকে ৪০ টাকা পর্যন্ত বিক্রি হচ্ছে বলে জানান। তিনি বলেন, ২ দিন পর পর লাউ তুলে পাইকারদের নিকট বিক্রি করছেন। প্রতি ২ দিন পর ১০ থেকে ১১ হাজার টাকার লাউ বিক্রি করছেন তিনি। এভাবে চলবে আরও কয়েক মাস। আবহাওয়া অনুকুলে থাকায় ফলন ভাল হয়েছে। দেখতে লাউ ক্ষেতটি দৃষ্টিনন্দন হওয়ায় তিনি ক্ষেতের মাঝখানে বেশ কয়েকটি কারো কুনজর না পড়ার জন্য ব্যানা বানিয়ে কালো কাপড় মুড়িয়ে চুন দিয়ে (কাকতারোয়া) প্রদর্শন করা হয়েছে। তিনি বলেন, প্রতিদিন পরিচর্যার পাশাপাশি লাউ তুলার জন্য একজন শ্রমিকও নিয়োগ দেয়া হয়েছে। ইব্রাহিমের দেখাদেখি চন্দনাইশের বিভিন্ন এলাকায় লাউ চাষ করে সংসারে স্বচ্ছলতা ফিরিয়েছেন। চন্দনাইশে শঙ্খ নদীর তীরবর্তী বৈলতলী, বরমা, দোহাজারী, চাগাচর, লালুটিয়া পাহাড়ী এলাকা হাশিমপুর, ধোপাছড়ি, ছৈয়দাবাদ, কাঞ্চনাবাদসহ বিভিন্ন এলাকায় শোভা পাচ্ছে লাউ ক্ষেত।