দাঁড়ানো লেগুনাকে কাভার্ড ভ্যানের ধাক্কা

মিরসরাইয়ে ছাত্রলীগ নেতাসহ নিহত ২

মিরসরাই প্রতিনিধি

6


মিরসরাইয়ে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে দাঁড়িয়ে থাকা যাত্রীবাহী লেগুনাকে একটি কাভার্ডভ্যান ধাক্কা দিলে উপজেলা ছাত্রলীগ নেতাসহ দুই জন নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এতে আহত হন আরো ৭ জন। গত ১০ সেপ্টেম্বর (মঙ্গলবার) রাত ১০ টার সময় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের জামালের দোকান এলাকায় চট্টগ্রামমুখী লাইনে এই দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনায় নিহতরা হলো মিরসরাই সদর ইউনিয়নের মান্দারবাড়ীয়া এলাকার সোলেমান কোম্পানী বাড়ির দেলোয়ার হোসেনের ছেলে আলাউদ্দিন (৬০) একই গ্রামের দৌলত ভূঁইয়া বাড়ির ডিপুটি হোসেনের ছেলে ও মিরসরাই উপজেলা ছাত্রলীগের সাংস্কৃতিক সম্পাদক মোশাররফ হোসেন মিলন (৩০)।
এই ঘটনায় আহতরা হলেন মিরসরাই সদর ইউনিয়নের কিছমত জাফরাবাদ এলাকার শ্যামল শর্মা (৩৫), উত্তর তালবাড়িয়া এলাকার অজিত দাশ (৪০), মধ্যম তালবাড়িয়া এলাকার রণজিত ভৌমিক, মঘাদিয়া ইউনিয়নের মাস্টারপাড়া এলাকার সত্যজিৎ দাশ (৩০), পঙ্কজ নাথ (৩৮), ওচমানপুর ইউনিয়নের সাহেবপুর গ্রামের জীবন (৪৫)।
মিরসরাই ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্স স্টেশন কর্মকর্তা তানভীর আহমেদ জানান, মঙ্গলবার রাত ১০ টার সময় মহাসড়কের জামালের দোকান এলাকায় রাস্তার পাশে যাত্রী উঠানোর জন্য দাঁড়িয়ে থাকা একটি যাত্রীবাহী লেগুনাকে পেছন দিক থেকে ধাক্কা দেয় অজ্ঞাত কাভার্ডভ্যান। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস ও জোরারগঞ্জ হাইওয়ে পুলিশ আহতদের উদ্ধার করে মিরসরাই উপজেলা সদরের মাতৃকা হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক আলাউদ্দিনকে মৃত ঘোষণা করে এবং মিলনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
জোরারগঞ্জ হাইওয়ে পুলিশের সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) আব্দুস সামাদ জানান, দুর্ঘটনাকবলিত লেগুনাটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। তবে কাভার্ড ভ্যানটি আটক করা সম্ভব হয়নি।