মাতামুহুরীতে নিখোঁজ ছাত্রের সন্ধান মিলেনি দুইদিনেও

চকরিয়া প্রতিনিধি

5

চকরিয়ায় মাতামুহুরী নদীতে গোসল করতে নেমে তৌহিদুল ইসলাম (২০) নামে এক কলেজ ছাত্র নিখোঁজ হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার নিখোঁজ হলেও গতকাল শনিবার বিকাল পর্যন্ত তার কোন সন্ধান মেলেনি।
সূত্র জানায়, গত বৃহস্পতিবার বিকাল ৩টার দিকে উপজেলার সুরাজপুর-মানিকপুর ইউনিয়নের উত্তর সুরাজপুর মাতামুহুরী নদীর চেয়ারম্যানঘাট পয়েন্ট এলাকায় নিখোঁজ হয় ওই কলেজ ছাত্র। নিখোঁজ তৌহিদুল ইসলাম ওই এলাকার আব্দুর রহমানের ছেলে এবং চকরিয়া সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের এইচএসসি ২য় বর্ষের ছাত্র।
চকরিয়া ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার মো. সাইফুল হাসান বলেন, মাতামুহুরী নদীতে তলিয়ে গিয়ে কলেজছাত্র নিখোঁজের পরপরই ফায়ার সার্ভিস, পুলিশ ও স্থানীয় লোকজন ওইদিন সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত টানা অভিযান চালিয়ে নিখোঁজ কলেজ ছাত্রের কোন হদিস মেলাতে পারেনি। পরে বৈরী আবহাওয়া ও রাত হওয়ার কারণে উদ্ধার অভিযান স্থগিত ঘোষণা করা হয়। পরদিন শুক্রবার সকালে চট্টগ্রাম থেকে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরী দল চকরিয়া পৌঁছলে স্থানীয় ফায়ার সার্ভিসের লোকজনসহ আবারো নিখোঁজ কলেজ ছাত্রকে উদ্ধারে যৌথভাবে অভিযান চালানো হয়। কিন্তু চকরিয়ায় গত দুইদিন ধরে টানা বৃষ্টি হওয়ায় মাতামুহুরী নদীতে উজান থেকে পাহাড়ি ঢল নামার কারণে উদ্ধার অভিযান বাধাপ্রাপ্ত হয়। ফলে স্থানীয় চেয়ারম্যান আজিমুল হক আজিম ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নূরুদ্দীন মোহাম্মদ শিবলী নোমানের পরামর্শে উদ্ধার অভিযান বন্ধ ঘোষণা করা হয়। কোথাও নিখোঁজ কলেজ ছাত্রের সন্ধান পাওয়া গেলে বিষয়টি ফায়ার সার্ভিসকে অবিহিত করার অনুরোধ জানান চকরিয়া ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার মো. সাইফুল হাসান।
চকরিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) এ কে এম শফিকুল আলম চৌধুরী বলেন, মাতামুহুরী নদীতে তলিয়ে গিয়ে নিখোঁজ হওয়ার ৪৮ ঘণ্টা অতিবাহিত হলেও নিখোঁজ কলেজছাত্র তৌহিদুল ইসলাম উদ্ধার হওয়ার ব্যাপারে শনিবার বিকাল সাড়ে ৩টা পর্যন্ত থানায় কেউ কোন ধরনের তথ্য দেয়নি। চকরিয়া ফায়ার সার্ভিস নিখোঁজ কলেজছাত্র উদ্ধার না হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বলেও জানান তিনি।