বাংলাদেশ-উইন্ডিজ ম্যাচে বৃষ্টির শঙ্কা নেই

ভারত-নিউজিল্যান্ড ম্যাচও পরিত্যক্ত

পূর্বদেশ ক্রীড়া ডেস্ক

17

স্থানীয় সময় ১০.৩০ মিনিটে শুরু হওয়ার ম্যাচ। সময় গড়িয়ে বিকেল ৩টা পেরোনোর পরও যখন বৃষ্টির থামাথামি নেই, তখনই বোঝা গেল ভারত-নিউজিল্যান্ডের ভাগ্য। ইংল্যান্ডের বৈরি বৃষ্টি নটিংহ্যামে হানা দিয়ে আবারও পয়েন্ট ভাগাভাগি করে দিয়েছে দুই দলের মাঝে।
লম্বা বিশ্বকাপে ১৮ নম্বর ম্যাচ ছিলো ভারত-নিউজিল্যান্ডের। এই ১৮টি ম্যাচের ১৪টি ফল দেখেছে। বাকি চারটি ভেসে গেছে প্রকৃতির বৈরিতার কারণে। মাত্র বর্ষাকাল শুরু হওয়ায় পরিত্যক্ত ম্যাচের সংখ্যা যে আরও বাড়বে তা বলার অপেক্ষা রাখে না!
এর আগে পাকিন্তান-শ্রীলঙ্কা ম্যাচে একটি বলও মাঠে গড়াতে পারেনি। সোমবার সাউথ আফ্রিকা-ওয়েস্ট ইন্ডিজ ম্যাচ শুরু হলেও সাড়ে সাত ওভার খেলার পর বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত হয়ে যায়। মঙ্গলবার টস দেখার ভাগ্যও হয়নি বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা ম্যাচে।
বৃষ্টির প্রƒকোপ এতটাই ছিল যে টসে নামারও সৌভাগ্য হয়নি ভারত-নিউজিল্যান্ড অধিনায়কের। তাই দুই দলই পেয়েছে এক পয়েন্ট করে। তাতে অবশ্য খুব একটা ক্ষতি হচ্ছে না বিরাট কোহলি-কেন উইলিয়ামসনদের। কারণ দুদলই এখন পর্যন্ত আছে অপরাজিত। পরিত্যক্ত ম্যাচের পয়েন্টসহ নিউজিল্যান্ড ৭ পয়েন্টে আছে শীর্ষে। তিন ম্যাচে ৫ পয়েন্টে ভারত উঠে এসেছে টেবিলের তিনে।
এদিকে ব্রিস্টল থেকে বুধবার বিকেলে বাংলাদেশ দল এসেছে টন্টনে। এমনিতেই এক নীরব শহর টন্টন । বাংলাদেশ দল যে হোটেলে উঠেছে তার আশপাশ আরও নীরব। এখানে টাইগাররা থাকবে ৬ দিন। হোটেল থেকে মাঠের দুরত্ব ১০ মিনিটের। আগামী ১৭ জুন কাউন্টি গ্রাউন্ডে অনুষ্ঠিত হবে বাংলাদেশ-ওয়েস্ট ইন্ডিজ ম্যাচ। আবহাওয়ার পূর্বাভাস বলছে, আগামী সোমবার বাংলাদেশ-ওয়েস্ট ইন্ডিজ ম্যাচের দিন আকাশ থাকবে অনেকটাই পরিষ্কার। হতে পারে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি। তবে ম্যাচ পন্ড হওয়ার শঙ্কা নেই বললেই চলে!