ব্রেক্সিট নিয়ে দোষারোপের খেলা থামান ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীকে ইইউ

10

ব্রেক্সিট নিয়ে দোষারোপের খেলা থামাতে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের প্রতি আহŸান জানিয়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)। এক টুইটে ইউরোপিয়ান কাউন্সিলের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড টাস্ক বলেছেন, বরিস জনসন; দোষারোপের খেলায় কেউই বিজয়ী হতে পারে না।এর আগে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর দফতর সূত্রে প্রকাশিত খবরে বলা হয়, ব্রেক্সিট নিয়ে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সঙ্গে কোনও চুক্তিতে পৌঁছানো কার্যত অসম্ভব হয়ে পড়েছে।
কেননা, জার্মান চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল চুক্তিতে যেসব চাহিদার কথা বলছেন তা গ্রহণযোগ্য নয়। মূলত এরপরই ব্রেক্সিট নিয়ে দোষারোপের খেলা থামাত ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর আহŸান জানান ডোনাল্ড টাস্ক। জনগণের ভবিষ্যৎ নিরাপত্তা ও স্বার্থের সুরক্ষা নিশ্চিতের মধ্যেই ইউরোপীয় ইউনিয়ন ও যুক্তরাজ্যের ভবিষ্যৎ নিহিত রয়েছে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।
বরিস জনসন ইউরোপের সঙ্গে থাকার মেয়াদ বাড়াতে চান না; আবার তিনি কোনও চুক্তি চান না বলে উল্লেখ করেন ইউরোপিয়ান কাউন্সিলের প্রেসিডেন্ট।
ব্রেক্সিট ইস্যুতে সমঝোতায় পৌঁছাতে ব্যর্থ হয়ে চলতি বছরের গত মে মাসে পদত্যাগের ঘোষণা দেন যুক্তরাজ্যের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে। তিনি সরে দাঁড়ানোর পর ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হন কট্টর ব্রেক্সিটপন্থী বরিস জনসন। নির্বাচিত হওয়ার পর আগামী ৩১ অক্টোবর নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ব্রেক্সিট বাস্তবায়নের ঘোষণা দিয়েছেন তিনি। প্রয়োজনে চুক্তিহীন ব্রেক্সিটের পথে হাঁটারও ঘোষণা দিয়েছেন তিনি।
গত সেপ্টেম্বরে এক অনুষ্ঠানে বরিস জনসন বলেন, খাদে পড়ে মরে গেলেও ইউরোপীয় ইউনিয়নকে ব্রেক্সিট পেছানোর অনুরোধ করবে না যুক্তরাজ্য। তবে নতুন চুক্তির কোনও পরিকল্পনা না করায় বরিস জনসনকে অভিযুক্ত করেছেন লেবার পার্টির নেতা জেরেমি করবিন। লিবারেল ডেমোক্র্যাট নেতা জো সুইমসন বলেন, প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যগুলো গভীর সমস্যা তৈরি করছে। শিগগিরই তিনি আইনি প্রক্রিয়ায় ব্রেক্সিট পেছাতে বাধ্য হবেন।