বোয়ালখালীতে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারে হামলা, থানায় মামলা দায়ের

বোয়ালখালী প্রতিনিধি

8

বোয়ালখালীতে এক মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের উপর হামলা ও নির্যাতনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। উপজেলার চরণদ্বীপ ইউনিয়নের হাজি পাড়ায় এ ঘটনা ঘটেছে।হামলা নির্যাতনে অতিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা শামসুল আলম বাদী হয়ে বোয়ালখালী থানায় ৬ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেছেন। সূত্রে জানা যায়, মুক্তিযোদ্ধা শামসুল আলম ও তার পরিবারকে প্রতিবেশী জহুর আলম ও মো. মফিজের পরিবার পূর্ব শত্রæতার জের ধরে দীর্ঘদিন ধরে নানাভাবে হামলা, মামলা করে নির্যাতন ও হয়রানী করে আসছেন। গত ১৬ সেপ্টেম্বর রাত ৮টার দিকে চরণদ্বীপ ইউনিয়নের আছুয়ার পুল সংলগ্ন এলাকায় রাস্তার উপর জহুর আলম ও মফিজের নেতৃত্বে ৬/৭জন শামসুল আলমের ছেলে মো. অহিদুল আলম(২৬) উপর অর্তকিত হামলা চালিয়ে আহত করেন। এক পর্যায়ে তারা অহিদুল আলমকে শ্বাসরোধ করে হত্যার করার সময় আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসায় হামলকারীরা পালিয়ে যায়।পরে স্থানীয় এলাকাবাসী অহিদুল আলমকে উদ্ধার করে আহত অবস্থায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করান।মুক্তিযোদ্ধা শামসুল আলম বলেন, প্রভাবশালীদের অত্যাচারে তিনি অতিষ্ট। সর্বশেষ সন্ত্রাসীরা তার ছেলেকে হত্যার চেষ্টা করেন। দেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে অংশগ্রহন করে দেশের ভু খন্ডকে স্বাধীন করেছি। কিন্তু পরিবার পরিজন নিয়ে নিজেই পরাধীন জীবন যাপন করছি। উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কমান্ডার হারুন মিয়া বলেন, অনেকদিন ধরে এ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের উপর জুলুম নির্যাতন চালাচ্ছে প্রভাবশালীরা। বার বার তাদের সর্তক করা হয়েছে। এবার যদি এ ঘটনার সুষ্ট বিচার না হয় তাহলে তাদের আন্দোলনে নামতে হবে বলে জানান তিনি। বোয়ালখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল করিম জানান,মারামারির ঘটনায় থানায় মামলা করেছেন মুক্তিযোদ্ধা শামসুল আলম। ঘটনাটি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।