‘বাংলাদেশে যেও না, পালানোর পথ পাবে না’

পূর্বদেশ স্পোর্টস ডেস্ক

9

চট্টগ্রাম টেস্টের পর মিরপুরেও একই চিত্র, টাইগার স্পিনারদের বিষে নীল হয়েছে সফরকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজ। প্রতিপক্ষকে দুই ম্যাচের চার ইনিংসেই অলআউট করেছে বাংলাদেশ। স্পিনাররাই নিয়েছেন ৪০ উইকেটের সবকটি। উইকেট ভাগাভাগি করেন সাকিব আল হাসান, নাঈম হাসান, তাইজুল ইসলাম এবং মেহেদি হাসান মিরাজ।
চট্টগ্রাম টেস্টে বিশেষজ্ঞ এক পেসার আর চার স্পিনার নিয়ে মাঠে নেমেছিল টাইগাররা। এক মোস্তাফিজুর রহমান ছাড়া কোনো বিশেষজ্ঞ পেসার ছিলেন না। উইকেট নেওয়ার সুযোগ হয়নি মোস্তাফিজের। কাটার মাস্টারকে ছাড়া মিরপুর টেস্টে একাদশ সাজায় বাংলাদেশ। নিজেদের টেস্ট ইতিহাসে এই প্রথম কোনো পেসার ছাড়া মাঠে নামে টাইগাররা। চার স্পিনার নিয়ে খেলতে নামলেও প্রত্যাশিত জয় তুলে নেয় স্বাগতিকরা।
২০০৯ সালের পর আরেকবার ওয়েস্ট ইন্ডিজকে হোয়াইটওয়াশ করে টাইগাররা। সিরিজের প্রথম টেস্টে স্পিনারদের দাপটে স্বল্প পুঁজি নিয়েও ৬৪ রানে জেতে বাংলাদেশ। সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে সেই স্পিন দাপটেই প্রতিপক্ষকে ফলোঅনে পাঠায় স্বাগতিকরা। যা টেস্টে এই প্রথম প্রতিপক্ষকে ফলোঅনে পাঠানোর গল্প, প্রথমবার প্রতিপক্ষকে ইনিংস ব্যবধানে হারানোর গল্পও। বাংলাদেশ স্পিন দাপটেই জেতে ইনিংস ও ১৮৪ রানের বিশাল ব্যবধানে। প্রথমবার প্রতিপক্ষকে ইনিংস ব্যবধানে হারানোর স্বাদ নেয় সাকিব-মিরাজ-তাইজুলরা।
টাইগারদের স্পিনে ক্যারিবীয়দের এমন অসহায় আত্মসমর্পণ দেখে বিশ্ব ক্রিকেটের বাকি দলগুলোকে সতর্কবার্তা দিয়েছেন ভারত সাবেক ক্রিকেটার ও বর্তমান ক্রিকেট বিশ্লেষক সঞ্জয় মাঞ্জরেকার। স্পিন ভালো খেলতে না পারলে বাংলাদেশ সফর করতে নিষেধ করেছেন তিনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে তিনি লিখেছেন, ‘তুমি যদি স্পিন ভালো খেলতে না পারো, তাহলে বাংলাদেশ সফরে যাওয়ার সাহস দেখিয়ো না। তারা এখন চারজন দুর্দান্ত স্পিনার নিয়ে খেলে। সেখানে পালানোর কোনো পথ নেই। #স্পিনেই যুদ্ধ।’
মিরপুর টেস্টে এক মিরাজের ঘূর্ণিতেই কাবু হতে হয়েছে সফরকারীদের। মিরাজ নিয়েছেন ১২ উইকেট। দুই টেস্টে নিয়েছেন সর্বোচ্চ ১৫ উইকেট। মিরপুর টেস্টে ম্যান অব দ্য ম্যাচও হয়েছেন মিরাজ। ক্যারিয়ার সেরা বোলিংও করেছেন ডানহাতি এই অফস্পিনার।
টুইটে মিরাজের ভূয়সী প্রশংসা করে মাঞ্জরেকার লিখেছেন, ‘ভালো করেছো মেহেদি হাসান। আজ বিশ্বের অন্যতম উজ্জ্বল তারকাদের একজন। লোয়ার অর্ডারে দারুণ ব্যাটসম্যান এবং একজন দুর্দান্ত ফিল্ডারও।’