ফিরিঙ্গিবাজারে ‘বন্দুকযুদ্ধের’ পর অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার দুই ছিনতাইকারী

নিজস্ব প্রতিবেদক

8

ছিনতাইয়ের প্রস্তুতিকালে পুলিশের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনা ঘটেছে। গত মঙ্গলবার দিবাগত গভীর রাতে নগরীর কোতোয়ালী থানাধীন ফিরিঙ্গিবাজারের মেরিনার্স সড়কে এ ঘটনা ঘটে। এসময় পুলিশের উপর এলোপাথাড়ি গুলি ছুড়ে তিন ছিনতাইকারী পালিয়ে গেলেও দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, মো. মাসুদ ওরফে কালা মাসুদ (২৭) ও মো. জুম্মন হোসেন (২২)। এদের মধ্যে মাসুদকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় গ্রেপ্তার করা হয়।
পুলিশ জানিয়েছে, গ্রেপ্তার হওয়া দুই ছিনতাইকারীর কাছ থেকে একটি দেশিয় বন্দুক, গুলি এবং দুইটি ছুরি উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় কোতোয়ালী থানায় অস্ত্র ও ডাকাতির প্রস্তুতি আইনে পৃথক দুটি মামলা দায়ের করেছে পুলিশ।
কোতোয়ালী থানার ওসি মো. মহসিন পূর্বদেশকে জানান, নগরীতে একটি ছিনতাইকারী চক্র সিএনজি অটোরিকশা করে বেশ কয়েকদিন থেকে একাধিক ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটায়। মঙ্গলবার দিবাগত রাতে গোপন সূত্রে খবর পাই, ফিরিঙ্গিবাজার মেরিনার্স সড়কে পাঁচ ছিনতাইকারী ছিনতাইয়ের প্রস্তুতি নিচ্ছিল। আমরা দ্রæততার সাথে অভিযান চালাই। এসময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে তারা পুলিশের উপর এলোপাথাড়ি গুলি ছুড়তে থাকে। পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। এসময় চক্রের তিন সদস্য পালিয়ে গেলেও মো. মাসুদ ওরফে কালা মাসুদকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় আটক করি। মাসুদের হাঁটুতে গুলি লেগেছে। এসময় চক্রের আরেক সদস্য জুম্মন হোসেনকেও গ্রেপ্তার করতি সক্ষম হই। গ্রেপ্তারকৃতদের কাছ থেকে একটি দেশি বন্দুক, গুলি, দুইটি কার্তুজের খোসা এবং দুইটি ছুরি উদ্ধার করা হয়েছে।’
তিনি বলেন, ‘গ্রেপ্তার দুইজন রাতে ও ভোরে সিএনজিচালিত অটোরিকশা নিয়ে নগরীর বিভিন্ন সড়কে ঘুরে বেড়ায়। সুযোগ বুঝে কাউকে পেলে অস্ত্র দেখিয়ে ছিনতাই করে। গ্রেপ্তারকৃতদের মধ্যে কালা মাসুদের বিরুদ্ধে নগরীর বিভিন্ন থানায় হত্যা, ধর্ষণ, ছিনতাইসহ অন্তত ছয়টি মামলা রয়েছে।’
প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তারকৃতরা জানিয়েছে, ‘গত ১৫ দিনে চক্রটি দুইটি ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটিয়েছে। গত ২০ অক্টোবর ভোরে জামালখান মোড়ে ঢাকা থেকে আসা এক ব্যক্তির কাছ থেকে টাকা ছিনিয়ে নেয়। এসময় বাধা দিলে তারা ভিকটিমকে ছুরিকাঘাত করে। এছাড়াও গত শনিবার বোস ব্রাদার্সের মোড়ে এক ব্যক্তির টাকা ছিনিয়ে নেয় চক্রটি। তাদের বিরুদ্ধে অস্ত্র ও ডাকাতির প্রস্তুতি আইনে পৃথক দুটি মামলা হয়েছে।’