নরসিংহ আখেড়ায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

রুমন ভট্টাচার্য

5

জগদ্ধাত্রী পূজা উপলক্ষে চকবাজার নরসিংহ আখেড়া মন্দির প্রাঙ্গণে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান গত ১৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হয়েছে। শিল্পী মানিক নন্দীর পরিচালনায় অনুষ্ঠানের প্রথম পর্ব শুরু হয় বিকাল ৪টায়। সদগুরুকে স্মরণ করে প্রথমে গান নিয়ে মঞ্চে আসেন শিল্পী ঐন্দ্রিলা গুহ। এরপর ‘হরি নাম দিয়ে জগত মাতালে’ পরিবেশন করেন শিল্পী ঐশী চক্রবর্তী। অনুরাগ সংগীতালয়ের সহযোগিতায় তবলায় সহযোগিতা করেন বিজয় চক্রবর্তী। এরপর ‘আছে গৌর নিতাই…’ গানের সাথে নৃত্য পরিবেশন করেন ঐন্দ্রিলা গুহ।
সন্ধ্যা ৬টায় অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে মঞ্চে দলীয় সংগীত ‘প্রাণের অর্ঘ্যে গেঁথেছি মাগো তোমার তরে মালা’ পরিবেশন করেন শিল্পী মানিক নন্দী ও তার দল।
দলীয় সংগীতে অংশগ্রহণ করেন শিল্পী অনন্যা দে, রিয়া দত্ত, তন্বী, মনিষা মুহুরী, চন্দ্রিমা দাশ, অর্পণা পাল, সুমন ঘোষ, প্রান্ত দে, কানু বিশ্বাস ও শিমুল তালুকদার।
একক সংগীতানুষ্ঠানে ‘বৈরাগী কল মাগো’ গান নিয়ে মঞ্চে আসেন শিল্পী অন্বেষা চৌধুরী, ‘দুর্গা মায়ের আগমনে খুশির জোয়ার’ পরিবেশন করেন সৃয়ন্তী দেবনাথ, শিমুল তালুকদারের কণ্ঠে ‘মায়ের পায়ের জবা’, অনন্যা দে এর কণ্ঠে ‘তোরে বানাইয়া রায় বিনোদিনী’, রিয়া দত্ত পরিবেশন করেন ‘মাগো তোমার মত লইয়া কেহ’, সুমন ঘোষের কণ্ঠে ‘মেরে মন মে বাচে হে রাম’, সেজুতি দে’র কণ্ঠে ‘আমি মন্ত্রতন্ত্র কিছুই জানি নে মা/কে আর বাজাবে বাঁশি’, সুকুমার দে পরিবেশন করেন ‘মায়ের কান্দন যাবত জীবন’, লুর্পনা মুৎসুদ্দীর কণ্ঠে ‘নয়নে নয়নে রাখি তোর শ্যাম তোরে পাইলে’ এবং মানিক নন্দী পরিবেশন করেন ‘করুনা পাতার জননী আমার ও ধান্দাবাজের ধোকায় পড়ে’। নৃত্য পরিবেশন করেন জয়িতা দে, কুস্তুরী বসাক, সুকনা ও ঐন্দ্রিলা গুহ।
যন্ত্রসংগীতে ছিলেন-কী বোর্ড : প্রণব দাশ, অক্টোপ্যাড : রূপন আচার্য্য, তবলায় : মিঠু ঘোষ ও বাঁশিতে সুকুমার দে।
শেষে অনুরাগ সংগীতালয়ের পরিচালক ও বাংলাদেশ বেতার শিল্পী মানিক নন্দীকে জগদ্ধাত্রী পূজা উদযাপন পরিষদ ও উত্তরাধিকার সংঘের পক্ষ থেকে সম্মাননা ক্রেস্ট প্রদান করা হয়।