জিনিয়াস সমাজ উন্নয়ন সংস্থার সভায় বক্তারা

দৃষ্টিভঙ্গি পরিবর্তনের মাধ্যমে বাল্য বিবাহ দমন করতে হবে

15

জিনিয়াস স্টুডেন্ট ফোরামের অঙ্গ সংগঠন জিনিয়াস সমাজ উন্নয়ন সংস্থার উদ্যোগে বাল্য বিবাহ নিরোধ দিবস ২০১৮ উপলক্ষে এবারের প্রতিপাদ্য থাকলে কণ্যা সুরক্ষিত, দেশ হবে আলোকিত বিষয়ক এক আলোচনা সভা সংগঠনের কার্যালয়ে গত ১০ অক্টোবর জিনিয়াস স্টুডেন্ট ফোরামের মহাপরিচালক ইঞ্জিনিয়ার আব্দুল মালেক সুমনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত আলোচনা সভায় সংগঠনের চট্টগ্রাম বিভাগীয় সভাপতি লেখক আলতাফ হোসেন হৃদয় উক্ত বিষয়ে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করে বলেন, বাল্য বিবাহ মহামারি আকারে ধারন করছে, যার কুফল ভোগ করতে হচ্ছে অল্প বয়সী বিয়ে হয়ে যাওয়া কণ্যারা তারা সাংসরিক বিষয়সমূহ বুঝে উঠতে না পারার কারনে নানা রকম পৈশচিক নির্যাতন সহ্য করতে হচ্ছে। বর্তমানে বাল্য বিবাহ নিরোধ আইন কঠোর ভাবে পাস করা হলেও সচেতন হচ্ছেন না গ্রাম বাংলার অভিভাকরা। সরকার প্রদত্ত¡ আইন দিয়েই এর বাল্য বিবাহ রোধ সরকারের একার পক্ষে সম্ভব নয় যা সুশীল সমাজও অভিভাবকদের দৃষ্টি ভঙ্গি পরিবর্তনের মাধ্যমেই বাল্য বিবাহ নিরোধ করা সম্ভব। বাল্য বিবাহ রোধে সর্বাত্মক প্রচার-প্রচারণা, নাটক, বিজ্ঞপ্তি আকারেও সমাধানের দ্বার উন্মোচন করা যায়। এতে উপস্থিত ছিলেন জিনিয়াস সমাজ উন্নয়ন সংস্থার সভাপতি শাহিদা আক্তার জোনাকী, ইঞ্জিনিয়ার মামুন উদ্দিন, মো. ইব্রাহিম খলিল, মো. আরমান শেখ, মো. ঈসা খান, এসএম আসিফ, আরিফুল ইসলাম হৃদয়, মো. তারেক রহমান, ইরফানুল ইসলাম, সাইফ করিম বাবর, জান্নাতুল ফেরদৌস বৃষ্টি, আমিনুল ইসলাম সিয়াম, মো. ইউসুফ, উম্মে মেহরাজ, জান্নাতুল ফেরদৌস, নুর মোহাম্মদ, ফারজানা আক্তার আনিকা, মুরাদ রহিম শাওন প্রমুখ। অল্প বয়সে ১৮’র নিচে যাতে আগামী দিনের সঞ্চার কন্যাদের যাতে বিবাহ না দেয় সেই দিকে যথাযথ কর্তৃপক্ষের নজর রাখার আহব্বান জানিয়েছেন তিনি। বিজ্ঞপ্তি