পাথরঘাটা মাহফিলে সহিদুল হক মাইজভান্ডারী

তরিকত চর্চার মাধ্যমে মানবিকতার জাগরণ হয়

4

আঞ্জুমান-এ মোত্তাবেয়ীনে গাউছে মাইজভান্ডারী পাথরঘাটা আঞ্চলিক শাখার উদ্যোগে ২৯ নভেম্বর বাদ এশা থেকে পবিত্র জশনে ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল­াম ও ফাতেহায়ে ইয়াজদাহূম উপলক্ষে আজিমুশ্শান জিকরে মোস্তফা (দ.) ও জিকরে গাউসুলআজম মাহফিল পাথরঘাটা মেনকা উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন ময়দানে অনুষ্ঠিত হয়। এতে মেহমানে আ’লা হিসাবে উপস্থিত ছিলেন, মাইজভান্ডার দরবার শরীফ গাউছিয়া আহমদিয়া মঞ্জিলের সাজ্জাদাশীন, আওলাদে রাসুল (দ.), আওলাদে গাউসুলআজম মাইজভান্ডারী, হযরতুলহাজ্ব শাহসুফি সৈয়দ মুহাম্মদ সহিদুল হক মাইজভান্ডারী (ম.)। উপস্থিত ছিলেন, চসিক ৩৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আলহাজ্ব হাসান মুরাদ বিপ্লব, আলহাজ্ব আশফাক আহমদ, আলহাজ্ব মাসুদ মাহমুদ, আলহাজ্ব মাওলানা মুফতি সৈয়দ সৈয়দুল বারী, মাওলানা সৈয়দ মুহাম্মদ তানজীদ হোসাইন মাইজভান্ডারী, এড্যাভোকেট মহিউদ্দিন জুবায়ের, আলহাজ্ব আকতার হোসেন জেকির সভাপতিত্বে মাহফিলের শুরুতে কেরাত, হামদ, নাতে রাসূল ও শানে মাইজভান্ডারী পরিবেশনায় ছিলেন শায়ের মাওলানা সৈয়দ মুহাম্মদ এহসান কাদের, শায়ের মুহাম্মদ তানভীর মহিউদ্দিন, মেহমানে আ’লা জাঁ-নশীনে অছি-এ-গাউসুলআজম মাইজভান্ডারী হজরত শাহসুফি সৈয়দ সহিদুল হক মাইজভাণ্ডারী মাদ্দাজিল্লুহূল আলী বলেন, রাহমাতুলি­ল আলামিন সাল্লালাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের শুকরিয়া আদায় করার মাধ্যম মিলাদুন্নবী (দ.) আর গাউছে পাকের খেদমতের শুকরিয়া আদায় ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করার উতকৃষ্ট পন্থা হলো যিকরে গাউসুলআজম মাহফিল- যার আয়োজনের মধ্যে তরিকতের জ্ঞান অর্জন করার অবারিত সুযোগ তৈরী হয় আর দৈনন্দিন জীবনে মানবিকতা উদ্ভাসিত হয় এর আমলের মাধ্যমে। বিজ্ঞপ্তি