ডিপ ফ্রিজে মিললো এক সপ্তাহ আগের অবিক্রিত ইফতারি

হাটহাজারী প্রতিনিধি

41

বিক্রির উদ্দেশ্যে রোজাদারদের জন্য তৈরিকৃত সপ্তাহ খানেক আগের অবিক্রিত বেগুনি, পেয়াজু, জিলাপি, ছোলা এবং চপে ডিপ ফ্রিজ ভর্তি ছিলো ইফতারির দোকানে। শুধু তাই নয়, বেকারিতে অপরিচ্ছন্ন পরিবেশে মিললো পোড়া তেল, পুরানো জিলাপির রস, টক দইয়ের পুরানো উপকরণ। আর এসব পুরানো পচা ও বাসি উপকরণ দিয়ে তৈরিকৃত ইফতার সামগ্রীসহ নানা খাদ্যদ্রব্য প্রক্রিয়াজাত করে বিক্রি করছিলেন ক্রেতাদের কাছে।
নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আসার খবর পেয়ে এসব পচা-বাসি খাবার ও পুরানো উপকরণসমূহ দ্রুত ডাস্টবিনে ফেলার কথা বলেও শেষ রক্ষা হয়নি দোকানিদের। ভ্রাম্যমাণ আদালতে গুণতে হয়েছে জরিমানা এবং সাময়িকভাবে বন্ধ করে দিতে হয়েছে দোকান। গতকাল বুধবার দুপুরে হাটহাজারী পৌরসভার বিভিন্ন দোকান, বেকারি এবং কলেজ রোড এলাকায় একটি রেস্টুরেন্টে ভেজালবিরোধী এ অভিযান চালায় উপজেলা প্রশাসন। অভিযানে নেতৃত্ব দেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রুহুল আমীন।
এ ব্যাপারে ইউএনও রুহুল আমীন বলেন, ভেজালবিরোধী অভিযানের অংশ হিসেবে পৌরসভার বিভিন্ন দোকান, বেকারি এবং কলেজ রোড এলাকায় একটি রেস্টুরেন্টে ভেজালবিরোধী অভিযান চালায় ভ্রাম্যমাণ আদালত। অভিযানের খবর পেয়ে দোকানের ডিপ ফ্রিজ ভর্তি সপ্তাহ খানেক আগের বেগুনি, পেঁয়াজু, জিলাপি, ছোলা এবং চপসহ ডাস্টবিনে ফেলে দেওয়ার বণিতা করে। এছাড়া ভাই ভাই বেকারিতে অপরিচ্ছন্ন পরিবেশে পোড়া তেল, পুরানো জিলাপির রস, টক দইয়ের পুরানো উপকরণ পাওয়া যায়। এ সময় এসব খাবার জব্দ করা হয়। পরে জব্দকৃত পোড়া তেল, জিলাপির রস, টক দইল নালায় ফেলে ধ্বংস করা হয় এবং দোকানিদেরকে সতর্ক ও ক্রেতা ঠকিয়ে মেয়াদহীন খাবার বিক্রির দায়ে ভাই ভাই বেকারিকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এছাড়া কলেজ রোড এলাকায় একটা রেস্টুরেন্ট সাময়িকভাবে বন্ধ করে দেয়া হয়।