ডিএসইতে সূচক ৩৩ মাসের মধ্যে সবচেয়ে কম

7

বাংলাদেশের পুঁজিবাজারে বড় দরপতন হয়েছে। প্রধান বাজার ঢাকায় মূল্যসূচক ৩৩ মাসের মধ্যে সবচেয়ে নিচে অবস্থান করছে। বিক্রির চাপে লেনদেন বাড়লেও কমেছে বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ারের দর। সপ্তাহের চতুর্থ দিন গতকাল বুধবার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৭৫ দশমিক ৭৮ পয়েন্ট কমে নেমে এসেছে ৪ হাজার ৯৩৩ দশমিক ১৭ পয়েন্টে। এই সূচক ৩৩ মাসের মধ্যে কম। এর আগে এরচেয়ে সূচক কম ছিল ২০১৬ সালের ২১ ডিসেম্বর। সেদিন সূচক ছিল ৪ হাজার ৯২৪ পয়েন্ট।
অপর বাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) প্রধান সূচক সিএএসপিআই ২১৩ দশমিক ৮০ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ১৫ হাজার ১৪ দশমিক ৩৫ পয়েন্টে। খবর বিডিনিউজের
গতকাল বুধবার ডিএসইতে ৫০২ কোটি ৪২ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। যা মঙ্গলবারের চেয়ে ৯৫ কোটি ৩৯ লাখ টাকা বেশি। গত মঙ্গলবার এই বাজারে ৪০৭ কোটি ০৩ লাখ টাকার শেয়ার হাতবদল হয়েছিল। গতকাল বুধবার ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নিয়েছে ৩৫৩টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। এরমধ্যে দর বেড়েছে মাত্র ৩৭টির, কমেছে ২৮৮টির। আর অপরিবর্তিত রয়েছে ২৮টি কোম্পানির শেয়ার দর।
ডিএসইএক্স বা প্রধান মূল্য সূচক ৭৫ দশমিক ৭৮ পয়েন্ট কমে ৪ হাজার ৯৩৩ দশমিক ১৭ পয়েন্টে অবস্থান করছে। ডিএসইএস বা শরীয়াহ সূচক ১৪ দশমিক ০১ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে এক হাজার ১৫৫ পয়েন্টে। আর ডিএস৩০ সূচক ২১ দশমিক ৯২ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ১ হাজার ৭৩৬ পয়েন্টে।
অন্যদিকে সিএসইতে ১৪ কোটি ৫৮ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এই লেনদেন আগের দিনের তুলনায় ৫৪ কোটি ৮৮ লাখ টাকা কম। মঙ্গলবার সিএসইতে লেনদেন ছিল ৬৯ কোটি ৪৫ লাখ টাকা। লেনদেন হয়েছে ২৬১টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। এর মধ্যে দর বেড়েছে ৩৬টির, কমেছে ২১০টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ১৫ টির দর।