চসিকের আন্তর্জাতিক নারী দিবস উদযাপন

14

‘প্রজন্ম হোক সমতার, সকল নারীর অধিকার’ এ শ্লোগানকে সামনে রেখে বিশ্বের অন্যান্য দেশের ন্যায় চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন ও প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়ন প্রকল্পের উদ্যোগে নগরীতে আন্তর্জাতিক নারী দিবস-২০২০ উপলক্ষে গত বৃহস্পতিবার, থিয়েটার ইনস্টিটিউটে এক আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন কাউন্সিলর ছালেহ আহমদ চৌধুরী। আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন চসিক সংরক্ষিত ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবিদা আজাদ, টাউন ম্যানেজার সরওয়ার হোসেন খান, সিডিসি’র টাউন ফেডারেশনের সভাপতি কহিনুর আক্তার, আনোয়ারা আলম সহ অন্যরা। প্রধান অতিথির বক্তব্যে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, আন্তর্জাতিক নারী দিবস নারী জাতির জন্য একটি অর্থবহ গৌরবের দিন। বর্তমান বিশ্বে নারীর অধিকার ও মর্যাদা প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে আন্তর্জাতিক নারী দিবস গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে। মেয়র বলেন, বর্তমান প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার নারী পুরুষের সমতা আনায়নে নারী শিক্ষার বিস্তার, নারীর অধিকার প্রতিষ্ঠা, নারীর ক্ষমতায়ন ও নারীর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধে নানামুখি আইন প্রণয়ন ও কার্যকর উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। মেয়র বলেন, দেশ গড়ার ক্ষেত্রে নারীরা পুরুষের সহযোদ্ধা। দেশের অর্থনীতি, রাজনীতি, সংস্কৃতি, বিচার, প্রশাসন, কুটনীতি, সশস্ত্র বাহিনী, আইনশৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনী সহ জাতীয় ও আন্তর্জাতিক অঙ্গনে নারীর সফল অংশগ্রহণ ও গৌরবোজ্জল ভূমিকা প্রশংসনীয়। তিনি আশা করেন, নারী-পুরুষের সম্মিলিত প্রয়াসে বাংলাদেশ ২০২১ ও ২০৪১ এর ভিশন সফলভাবে পৌঁছতে পারবে। মেয়র বলেন, বাংলাদেশের অর্ধেক জনগোষ্টি নারীকে অন্ধকারে রেখে জাতির কল্যাণ সম্ভব নয় বিধায় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা যোগ্যতার ভিত্তিতে নারীদের সর্বক্ষেত্রে সমঅংশিদারিত্ব নিশ্চিত করার প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছেন। মেয়র আরো বলেন, জাতিসংঘ সহ বিভিন্ন দেশ ও আন্তর্জাতিক সংস্থা বাংলাদেশের নারী উন্নয়নের ভূয়ষী প্রশংসা করছে। প্রসঙ্গক্রমে মেয়র বলেন, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন সরকারের ভিশন অনুযায়ী নানাক্ষেত্রে নারীদের প্রাধান্য দিয়ে যাচ্ছে। তিনি নারী শিক্ষার গুরুত্ব অনুধাবন করে সকলকে এগিয়ে আসার আহবান জানান। আলোচনা সভা শেষে এক বর্ণাঢ্য সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। বিজ্ঞপ্তি