খ্যাতিমান লেখক সমৃদ্ধ ইদানীং লিটল ম্যাগ আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস সংখ্যা-২০১৯

আবু সালফি

21

লিটল ম্যাগ ইদানীং আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস সংখ্যা-২০১৯ চট্টগ্রামের অমর একুশে বইমেলায় মোড়ক উন্মোচন হয়েছে। লেখক ও গবেষক মিনহাজুল ইসলাম মাসুম সম্পাদিত ও ইদানীং সাহিত্য চর্চা কেন্দ্র-চট্টগ্রাম কর্তৃক পরিচালিত লিটল ম্যাগাজিনে এবারও খ্যাতিমান লেখকদের নিয়ে সাজানো হয়েছে। বেড়েছে কলেবর, এসেছে শৈল্পিকতার ছোঁয়া। সময়ের আলোকে একুশ নিয়ে প্রবন্ধ, ছড়া, কবিতা, গল্প, রম্য ও ইতিহাস-ঐতিহ্য ইত্যাদি বিষয়ে লিখেছেন লেখকগণ। ‘আমাদের গর্ব আমাদের ভাষা’ বিষয়ে প্রবন্ধ লিখেছেন লেখক ও রোহিঙ্গা গবেষক ড. মাহফুজুর রহমান আখন্দ, ‘ড. মুহাম্মদ শহীদুল্লাহর জীবন ও কর্ম’ শিরোনামে লিখেছেন প্রবন্ধকার এম. উসমান গনি, ‘রাষ্ট্রভাষা বাংলা চাই : প্রেক্ষিত আজকের বাংলাদেশ’ নিয়ে লিখেছেন লেখক ও গবেষক রায়হান আজাদ, ‘স্পেনের মুসলিম ইতিহাস ও ঐতিহ্য’ বিষয়ে লিখেছেন কবি শাহ মুহাম্মদ নেয়ামত উল্লাহ।
আরো যাদের প্রবন্ধ রয়েছে তারা হলেন: বিশিষ্ট লেখক ও কবি মির্জা মুহাম্মদ নুরুন্নবী নুর এবং কলামিস্ট সবুজ কবির। নিয়মিত বিভাগ আলাপচারিতায় অংশগ্রহণ করেছেন বরেণ্য শিশু সাহিত্যিক আলী আসকর। তিনি এবারের এম.এ.আজিজ স্টেডিয়ামের জিমনেশিয়ামে অনুষ্ঠিত ঐতিহাসিক অমর একুশে বইমেলার জন্য চট্টগ্রামের মাননীয় মেয়র এবং সংশ্লিষ্ট সকলের ভুয়সী প্রশংসা করেছেন।
এবারে নতুন বিভাগ অনুবাদ সাহিত্য নিয়ে লিখেছেন কবি সেলিম উদ্দিন। তিনি যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসি লেখক মোশতাক আলমের একটি লেখা অনুবাদ করেছেন ‘মানব চেতনার প্রকৃতি ও অবস্থা’ শিরোনামে। অনেকগুলো কবিতা স্থান পেয়ে এবারের সংখ্যায়। কবিরা হলেন : কবি কমরুদ্দিন আহমদ, আরিফ চৌধুরী, সাইমন নজরুল, রুকুন-উদ-দৌলা সোহেল, তাপস চক্রবর্তী, মোস্তফা নুর, ওয়াহিদ আল হাসান, মিজান মনির, সাজিব চৌধুরী, হাসান বিন নজরুল, আলাউদ্দিন কবির, মোহাম্মদ ইমাদ উদ্দিন, মো: সফিউল হক, কৌশিক দাশ, জয়িতা চ্যাটার্জী, মামুন প্লাবন, কাজী নাঈমুল হাসান, মো: হাছান শরীফ কাব্য এবং তানভীর সিকদারসহ আরো অনেকে। বেশ কিছু ছড়া যুক্ত হয়েছে সংখ্যাটিতে। ছড়াকারগণ হলেন: সৈয়দ খালেদুল আনোয়ার, শামীম খান যুবরাজ, মুহাম্মদ সাইফুল্লাহ কায়সার, নুশরাত রুমু, নাসির উদ্দিন, হামিদ হোসাইন মাহদী, ফরহাদ আরিফ, মেহেদী হাসান, রমজান আলী রনি, জালাল উদ্দীন ইমনসহ অনেকে। এবারের সংখ্যার গল্পকাররা হলেন: ইলিয়াস বাবর, মিনহাজুল ইসলাম মাসুম, আলমগীর মোহাম্মদ সিরাজ, শরীফ সাথী, কবির কাঞ্চন, মুহাম্মদ রমিজ উদ্দিন এবং রেজা কারিম। ভ্রমণ কাহিনি লিখেছেন ‘পারকি সমুদ্র সৈকত’ নিয়ে মুহাম্মদ তাফহীমুল ইসলাম এবং রম্য রচনা লিখেছেন কবি আলমগীর ইমন এবং অনিরুদ্ধ সুব্রত।
বইমেলা ভাবনা নিয়ে মতামত পেশ করেছেন কবি কমরুদ্দিন আহমদ এবং কবি আযাদ আলাউদ্দিন। এছাড়া সংগঠন সংবাদও আছে এবারে। মোটামুটিভাবে বলা যায়, এবারের ম্যাগাজিনটি একটি সুন্দর এবং ভিন্নস্বাদ ও মাত্রার। যা পাঠক নন্দিত হবে আশা করা যায়। চার রঙের ৭০ গ্রামের কাগজে ১১২ পৃষ্ঠার সুদৃশ্য প্রচ্ছদ সমৃদ্ধ এই সংখ্যাটি ইদানীং-এর ১০ম সংখ্যা। মাত্র ৩৫০ টাকা মূল্যের লিটল ম্যাগটি পাওয়া যাচ্ছে বাণিজ্যিক রাজধানী চট্টগ্রাম চকবাজার শাহানশাহ মার্কেটের চন্দ্রবিন্দু লাইব্রেরি, অজন্তা লাইব্রেরি, সালফি পাবলিকেশন্সসহ অভিজাত লাইব্রেরিগুলোতে এবং নিকটস্থ পত্রিকা হকারদের কাছে। এ সংখ্যার প্রচ্ছদ শিল্পী হলেন-আলমগীর ইমন। লিটল ম্যাগ ইদানীং আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস সংখ্যা-২০১৯এর কাংখিত সাফল্য ও বহুল প্রচার কামনা করছি।