জাতীয় জাদুঘরে প্রদর্শনীর অনুষ্ঠানে বক্তারা

ক্যালিগ্রাফির মাধ্যমে ফুটে ওঠে ইসলামের নান্দনিকতা

20

হুজুর গাউছুল ওয়ারা শায়খুল ইসলাম শাহ্সূফী মাওলানা সৈয়দ মইনুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানীর (ক.) ৮২ তম খোশরোজ শরীফ উপলক্ষে সৈয়দ মইনুদ্দীন আহমদ মাইজভান্ডা রী ক্যালিগ্রাফি ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ঢাকা শাহবাগ জাতীয় জাদুঘরের নলীনিকান্ত ভট্টশালী গ্যালারিতে গতকাল থেকে ৫ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ১১ দিনব্যাপী ইসলামী ক্যালিগ্রাফি প্রদশর্নী শুরু হয়েছে। গতকাল প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন ফাউন্ডেশনের ভাইস চেয়ারম্যান শাহ্জাদায়ে গাউছুল আ’যম সৈয়দ মেহবুব-এ-মইনুদ্দীন।
তিনি বলেন, ইসলামী বিধানে নির্মল নান্দনিকতা ও শিল্প সৌন্দর্যকে ঊর্ধ্বে স্থান দেয়া হয়েছে। শিল্পীর হাতের আঁছড়ে আরবি হরফকে বিশেষভাবে ফুটে তোলার নামই হচ্ছে ইসলামী ক্যালিগ্রাফি। ইসলামের নিপুণ নান্দনিকতা ও শিল্প সৌন্দর্য ক্যালিগ্রাফির মাধ্যমে উজ্জ্বলভাবে ফুটে ওঠে। আল্লাহর ওলীগণ ইসলামের নান্দনিক সৌন্দর্য সকলের নিকট গ্রহণযোগ্য করতে বুদ্ধিবৃত্তিক ও সার্থকভাবে তুলে ধরে আসছেন বলে তিনি উলে­খ করেন। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, আন্জুমান আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক মো: ওসমান আলী, ফাউন্ডেশনের পরিচালক মো.সাইফুল্লহ সাফা, শিল্পী সাইফুল ইসলাম, শিল্পী মোস্তফা আল মারুফ, মেহেদী পাতা দিয়ে পবিত্র কুরআন লেখক শিল্পী ফেরদৌস আরা বেগম, শিল্পী আমিরুল ইসলাম আমিন, শিল্পী কিশান মোশাররফ, শিল্পী আব্দুর রহিম, শিল্পী আবু দারদা, শিল্পী মাসুম বিল্লাহসহ অতিথি ও শিল্পীবৃন্দ।
সৈয়দ মইনুদ্দীন আহমদ মাইজভান্ডারী ক্যালিগ্রাফি ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ১১ দিনব্যাপী কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে ৫ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত প্রদর্শনী। ১ ফেব্রুয়ারি সকাল ১০টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২ টা পর্যন্ত ক্যালিগ্রাফি বিষয়ে প্রশিক্ষণ কর্মশালা, ২ ফেব্রুয়ারি বিকাল ৩টা থেকে ৫টা পর্যন্ত জাতীয় জাদুঘরের বেগম সুফিয়া কামাল হলে সেমিনার ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান। খবর বিজ্ঞপ্তির