‘আইটি ইনকিউবেটর স্টার্টআপ’ প্রতিযোগিতার নিবন্ধন শুরু

7

মোবাইল ফোন অপারেটর বাংলালিংক তাদের ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম আইটি ইনকিউবেটরের তৃতীয় ব্যাচের বাছাই প্রক্রিয়া শুরু করেছে। বাংলালিংক ও বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষ যৌথভাবে এই কার্যক্রম শুরু করে ২০১৬ সালে।
বাংলালিংক নির্বাচিত স্টার্টআপগুলোকে অবকাঠামো, উপকরণ, এবং নির্দেশনাগত সহায়তা প্রদান করে থাকে। প্রাথমিকভাবে স্টার্টআপগুলোকে তাদের অভিনব পরিকল্পনা, ব্যবসায়িক সম্ভাবনা এবং দলগত শক্তিমত্তার ভিত্তিতে নির্বাচন করা হয়। নির্বাচিত স্টার্টআপ তাদের সব কার্যক্রম পরিচালনা করার জন্যে কারওয়ান বাজারে অবস্থিত জনতা টাওয়ারে অফিস স্পেসের সুবিধা, অনলাইনে শিক্ষা সহায়তামূলক কার্যক্রমে বিনামূল্যে অংশ নেওয়ার সুযোগের পাশাপাশি অন্যান্য উপকরণগত সুবিধাও ভোগ করবে। প্রতিশ্রæতিশীল স্টার্টআপগুলোকে বাংলালিংকের সঙ্গে অংশীদারিত্ব উপভোগ করার মতো সুযোগও থাকবে। অনলাইনে আবেদন জমা দেওয়ার শেষ সময় ২৮ নভেম্বর। আবেদন জমা দিতে ভিজিট করুন যঃঃঢ়ং://রহপঁনধঃড়ৎ.নধহমষধষরহশ.হবঃ/ ওয়েবসাইট।
এ প্রসঙ্গে বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হোসনে আরা বেগম বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশের স্বপ্ন পূরণে হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষ কয়েক বছর ধরে বেশ কিছু প্রকল্প পরিচালনা করে আসছে। জনতা টাওয়ার সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক একটি অন্যতম প্রকল্প, যা দেশের স্টার্টআপগুলোকে সহযোগিতা করার পাশাপাশি ডিজিটাল অবকাঠামোগত উন্নয়নের লক্ষ্যে পরিচালনা করা হচ্ছে।
বাংলালিংকের চিফ কর্পোরেট অ্যান্ড রেগুলেটরি অ্যাফেয়ার্স অফিসার তাইমুর রহমান বলেন, আমরা তরুণ উদ্যোক্তাদের জন্য ‘স্টার্টআপস স্কাউটিং প্রোগ্রাম’ আইটি ইনকিউবেটরের রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়া শুরু করতে পেরে আনন্দিত। আমরা চাই উদ্ভাবনী শক্তির সঙ্গে উদ্যোক্তা হওয়ার ইচ্ছা আছে এমন তরুণরাই এই প্রোগ্রামে অংশগ্রহণ করুক। সূত্র : ইন্টারনেট